ইতিমধ্যেই শুরু হয়েছে ভারতের সপ্তদশ লোকসভা নির্বাচন। গত ১১ এপ্রিল সম্পন্ন হয়েছে প্রথম দফায় ৯১ টি আসনে ভোট। দ্বিতীয় দফায় আগামী ১৮ এপ্রিল দেশের ১৩ টি রাজ্যের ৯৭ টি লোকসভা আসনে ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হতে চলেছে।
দ্বিতীয় দফায় লোকসভা ভোটে যাঁরা প্রার্থী হয়েছেন, তাঁরা ইতিমধ্যেই মনোনয়ন জমা দিয়েছেন। মনোনয়ন জমা দেওয়ার সময় তাঁরা যে হলফনামা জমা দিয়েছেন তার ভিত্তিতেই ন্যাশনাল ইলেকশন ওয়াচ এবং অ্যাসোসিয়েশন ফর ডেমোক্রেটিক রিফর্মস বা এডিআর সম্প্রতি নিজেদের একটি সমীক্ষা রিপোর্ট প্রকাশ করেছে।
সেই রিপোর্টে বলা বলা হয়েছে, দ্বিতীয় দফায় মোট ১ হাজার ৬৪৪ জন প্রার্থী নিজেদের মনোনয়ন জমা দিয়েছেন। তাঁদের মধ্যে ১৫৯০ জনের হলফনামার উপর ভিত্তি করে এই রিপোর্ট প্রকাশ করা হয়েছে। প্রকাশিত রিপোর্টে দেখা যাচ্ছে, এই ১৫৯০ জনের মধ্যে ২৫১ জন অর্থাৎ ১৬ শতাংশ প্রার্থীর বিরুদ্ধে ফৌজদারি ধারায় অভিযোগ রয়েছে।
দলগত হিসেব অনুযায়ী, কংগ্রেসের ৫৩ জন প্রার্থীর মধ্যে ২৩ জন প্রার্থীর বিরুদ্ধে রয়েছে ফৌজদারি অভিযোগ। বিজেপির ৫১ জন প্রার্থীর মধ্যে ১৬ জনের বিরুদ্ধে রয়েছে ফৌজদারি অভিযোগ। বিএসপির ৮০ জনের মধ্যে ১৬ জনের বিরুদ্ধে ফৌজদারি অভিযোগ আছে।
এই প্রকাশিত রিপোর্টে আরও জানা গিয়েছে, এই ১৫৯০ জন প্রার্থীর মধ্যে ৪২৩ জন প্রার্থী এমন রয়েছেন তাঁদের সম্পত্তির পরিমাণ ১ কোটি টাকারও বেশি। দলগত হিসেব অনুযায়ী, কংগ্রেসের ৫৩ জন প্রার্থীর মধ্যে ৪৬ জন অর্থাৎ ৮৭ শতাংশ প্রার্থী কোটিপতি, বিজেপির ৫১ জন প্রার্থীর মধ্যে ৮৮ শতাংশ অর্থাৎ ৪৫ জন প্রার্থী কোটিপতি এবং ডিএমকের ২৪ জন প্রার্থীর মধ্যে ২৩ জনই কোটিপতি প্রার্থী। দ্বিতীয় দফায় যে প্রার্থীরা প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন তাঁদের সম্পত্তির গড় পরিমাণ ৩.৯০কোটি টাকা।

You may also like