বাক স্বাধীনতা, মত প্রকাশে সরকারের হস্তক্ষেপ, অসহিষ্ণুতা নিয়ে দেশজোড়া চলতি বিতর্কের মাঝেই, এবার অসমের নাগরিকত্ব বিলের বিরোধিতা করায় বেশ কয়েকজন বুদ্ধিজীবীর বিরুদ্ধে অভিযোগ দায়ের করল অসমের বিজেপি সরকার। অসম পুলিশ জানিয়েছে, অসমের প্রথম সারির শিক্ষাবিদ তথা বুদ্ধিজীবী হীরেন গোহেন, সমাজকর্মী অখিল গগৈ, প্রাক্তন সাংবাদিক মানজিৎ মহন্তের বিরুদ্ধে দেশ বিরোধী মন্তব্য করার জন্য সংশ্লিষ্ট ধারায় অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে। পুলিশ মনে করছে, গত মঙ্গলবার গুয়াহাটিতে নাগরিকত্ব বিলের বিরুদ্ধে তাঁরা যে মন্তব্য করেছেন তা দেশের সার্বভৌমত্বকে বিপদে ফেলতে পারে, জন্ম দিতে পারে অশান্তির।
গুয়াহাটির পুলিশ কমিশনার দীপক কুমার জানিয়েছেন, ওই দিন বিক্ষোভ সভা থেকে এমন কিছু মন্তব্য করা হয়, যার তদন্ত প্রয়োজন। তাই এই অভিযোগ দায়ের করেছে পুলিশ। সূত্রের খবর, ভারতীয় দণ্ডবিধির ১২০ বি, ১২১, ১২৩, ১২৪ এ ধারায় গুয়াহাটির লাটাশিল পুলিশ স্টেশনে ওই এফআইআর রুজু হয়েছে। সেভ আসাম ফোরামের তরফে ওই দিন আয়োজিত হয়েছিল ওই সভা। বিরোধীদের অভিযোগ, অসমের বিজেপি সরকার যে বাক স্বাধীনতা, মত প্রকাশের পরিসর ক্ষর্ব করতে চাইছে, এই ঘটনা তারই প্রমাণ।
উল্লেখ্য, সম্প্রতি দেশে মত প্রকাশের পরিসর, বিরোধিতার সুযোগ কমছে বলে সম্প্রতি সরব হয়েছেন বিশিষ্ট অভিনেতা নাসিরুদ্দিন শাহ। বিরোধিতা করলেই সরকার দমন পীড়নের পথে নামছে, জেলে পুরছে, এজেন্সি মারফত হেনস্থা করছে বলে তাঁর অভিযোগ। বিরুদ্ধ মতকে দেশ বিরোধী তকমা দেওয়া হচ্ছে বলেও উদ্বেগ প্রকাশ করেছেন তিনি। নোবেল জয়ী অর্থনীতিবিদ অমর্ত্য সেনও সমর্থন জানিয়েছেন শাহকে।