কাশ্মীর সীমান্তে অনুপ্রবেশের চেষ্টা, ভারতীয় সেনার গুলিতে মৃত্যু ২ পাক জঙ্গির

ঠিক নববর্ষের আগেই সীমান্ত পার হয়ে হামলার ছক পাকিস্তানের। অভিযোগ, রবিবার গভীর রাতে পাকিস্তানের বর্ডার অ্যাকশন টিম (বিএটি) এলওসিতে ঢোকার চেষ্টা চালায়। জম্মু-কাশ্মীরের নৌগাম সেক্টরে ভারতীয় সীমা অতিক্রম করে তারা। সেই সঙ্গে পাকিস্তানি চেক পয়েন্ট থেকে প্রবল গুলি বর্ষণ করে বিএটি-দের সাহায্যের চেষ্টা করা হয়।
পাকিস্তানিদের গুলির জবাবে ভারতীয় সেনাও জবাব দেয়। রবিবার প্রায় সারা রাত ধরে চলে দু’পক্ষের গুলির লড়াই। এর মধ্যে গভীর জঙ্গলের মধ্যে পাক বর্ডার অ্যাকশন টিমের খোঁজ চালায় সেনা। ভারতীয় সেনার গুলিতে ২ পাকিস্তানির মৃত্যু হয় বলে জানা গিয়েছে। ওই ২ জনের কাছ থেকে প্রচুর পরিমাণে বিস্ফোরক উদ্ধার করা হয়। এখনও পর্যন্ত আরও পাকিস্তানি সীমান্তের এপারে লুকিয়ে রয়েছে বলে সন্দেহ সেনার। তাই অনুসন্ধানের কাজ চালাচ্ছে তারা।
ভারতীয় সেনা জানিয়েছে, অনুপ্রবেশকারীরা পাকিস্তানি সেনা পোশাকে ছিল। তাদের কাছে যে সমস্ত জিনিস ছিল তাতে পাকিস্তানের মুদ্রাঙ্কন ছিল বলেও সেনার তরফে জানানো হয়েছে। আবার কয়েকজন ভারতীয় সেনার ইউনিফর্মের আদলে পোশাক পরেছিল, যাতে সেনার চোখকে ফাঁকি দেওয়া যায়। নৌগাম সেক্টরে ঢুকে সেনা ঘাঁটিতে তারা বড়সড় হামলার ছক কষছিল বলে সন্দেহ করা হচ্ছে।
যদিও সেনাবাহিনীর তরফে তল্লাশি চলছে এখনও। ভারতীয় সেনার পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, পাকিস্তানকে মৃত সেনাদের দেহ ফিরিয়ে দিতে চায় তারা। অবশ্য তার আগে পাকিস্তানিদের গুলিবর্ষণ থামাতে হবে জানান এক সেনা অফিসার।

Comments
Loading...