শীঘ্রই রাম মন্দিরের কাজ শুরু হবে, হাতে আসবে পাক অধিকৃত কাশ্মীরও, বললেন গুজরাতের মুখ্যমন্ত্রী

খুব শীঘ্রই অযোধ্যায় রাম মন্দির তৈরি করবে বিজেপি সরকার। গুজরাতের ভোট প্রচারে গিয়ে মন্তব্য করলেন রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী বিজয় রূপাণি।
বুধবারই শেষ হয়েছে অযোধ্যা-বাবরি জমি বিতর্ক মামলার দৈনিক শুনানি। এর মধ্যে অযোধ্যায় রাম মন্দির নিয়ে সুর চড়ালেন গুজরাতের মুখ্যমন্ত্রী।
বুধবারই পাঁচমহল ও আহমেদাবাদে দু’দুটি নির্বাচনী সভা থেকেই অযোধ্যায় রাম মন্দির গড়া নিয়ে তাঁদের অঙ্গীকারের কথা শোনালেন বিজেপি নেতা বিজয় রূপাণি। জনসভা থেকে গুজরাতের মুখ্যমন্ত্রী বলেন, সুপ্রিম কোর্টে বিচারপর্ব শেষ হলেই অযোধ্যায় রাম মন্দির গড়ার কাজে হাত লাগাবেন তাঁরা। দুটি নির্বাচনী সভাতেই গুজরাতের মুখ্যমন্ত্রীর গলায় শোনা গেল প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী ও স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহের প্রশস্তি। জম্মু-কাশ্মীর থেকে বিশেষ মর্যাদা সরানোর প্রেক্ষিতে বিজয় রুপাণি বলেন, যেভাবে জম্মু-কাশ্মীর থেকে ৩৭০ ধারা সরিয়ে নিয়ে মোদী সরকার প্রতিশ্রুতি রক্ষা করেছে, সেভাবেই রাম মন্দির গড়বেন তাঁরা। পাশাপাশি, পাক অধিকৃত কাশ্মীরকে ভারতের অংশ করার ব্যাপারেও বিজেপি সরকার সমান উদ্যোগী বলে মন্তব্য করেন গুজরাতের মুখ্যমন্ত্রী। কিছুদিন আগে লোকসভাতেও কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ জানিয়েছিলেন, জম্মু-কাশ্মীর বলতে তিনি পাক অধিকৃত কাশ্মীরকেও বোঝেন।
পাঁচমহল জেলার লুনাওয়াড়া কেন্দ্রের র‍্যালি থেকে বিজয় রূপাণি বলেন, রামের জন্মভূমিস্থলের জমি বিবাদ নিয়ে দৈনিক শুনানি শেষ করেছে শীর্ষ আদালত। আগামি ১ মাসের মধ্যেই মামলার নিষ্পত্তি হয়ে যাবে বলে আত্মবিশ্বাসী গুজরাতের মুখ্যমন্ত্রী। বলেন, আমরা সবাই রাম মন্দির তৈরির স্বপ্ন দেখতে পারি, শীঘ্রই যে স্বপ্ন বাস্তব হতে চলেছে। এখানেই থামেননি গুজরাতের মুখ্যমন্ত্রী। তিনি বলেন, প্রথম সারির কংগ্রেসে নেতাদের দুর্নীতি ক্রমাগত সামনে আসছে। এঁদের সবারই জেলে জায়গা হবে। গুজরাতের মুখ্যমন্ত্রীর কথায়, এক মাস হল পি চিদম্বরম জেলে। এখন প্রফুল্ল প্যাটেলকে ইডি জিজ্ঞাসা করছে। সাধারণ মানুষ এতদিন ভেবে এসেছে রাজনীতি ও রাজনৈতিক নেতা মাত্রেই দুর্নীতিপরায়ণ। কিন্তু মোদীজি দেখিয়েছেন, স্বচ্ছ সরকার অসম্ভবের কিছু নয়।

Comments
Loading...