আর্থিক দুর্নীতির অভিযোগে বিশ্বভারতীর উপাচার্যের পদ থেকে তিনি আগেই অপসারিত হয়েছিলেন। ৪ বছর পর ফের নতুন করে বিপাকে বিশ্বভারতীর প্রাক্তন উপাচার্য সুশান্ত দত্তগুপ্ত। এবার তাঁর বিরুদ্ধে মামলা দায়ের CBI এর।

বিশ্বভারতী থেকে বরখাস্ত, উপাচার্য সুশান্ত দত্তগুপ্তের বিরুদ্ধে সিবিআই অপরাধমূলক ষড়যন্ত্র (১২০বি), বিশ্বাসভঙ্গ (৪০৬), সরকারি কর্মচারি হিসাবে বিশ্বাসভঙ্গ (৪০৯) এবং অপরাধীসুলভ অসৎ আচরণ (১৩/২) সহ একাধিক ধারায় মামলা দায়ের করেছে।

২০১১ সালের সেপ্টেম্বরে বিশ্বভারতীর উপাচার্য পদে যোগ দেন বিজ্ঞানী সুশান্ত দত্তগুপ্ত। কিন্তু তারপর থেকে নানা বিতর্কে জড়িয়ে পড়েছেন তিনি। জওহরলাল নেহরু বিশ্ববিদ্যালয় থেকে পেনশন তোলা, বিশ্বভারতী থেকে বেতন নেওয়া সহ একাধিক প্রতিষ্ঠান থেকে টাকা নেওয়ার অভিযোগ ওঠে সুশান্ত দত্তগুপ্তের বিরুদ্ধে। এরপর বিশ্বভারতীতে আর্থিক গরমিল, বিধি ভেঙে নিয়োগের মতো বিতর্ক, এমনকি মদ্যপানের ব্যক্তিগত বিল বিশ্ববিদ্যালয় তহবিল থেকে মেটানোর মতো গুরুতর অভিযোগও ছিল সেই তালিকায়। অভিযোগের প্রেক্ষিতে উপাচার্য সুশান্ত দত্তগুপ্তের বিরুদ্ধে তদন্ত কমিটি গঠন করে মানবসম্পদ উন্নয়ন মন্ত্রক। সেই কমিটির রিপোর্টের ভিত্তিতে তাঁকে পদ থেকে সরানোর সুপারিশ করা হয়। তাতে সই করেন বিশ্বভারতীর তৎকালীন আচার্য, প্রয়াত রাষ্ট্রপতি প্রণব মুখার্জি। তারপর ২০১৬ সালেই অপসারিত হতে হয় সুশান্ত দত্তগুপ্তকে। কোনও কেন্দ্রীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্যকে ক্ষমতা থেকে সরিয়ে দেওয়া ছিল দেশের ইতিহাসে বিরল।

এতদিন পর ফের সেই অভিযোগ ঘিরে সিবিআই তদন্তের মুখে পড়লেন সুশান্ত দত্তগুপ্তকে। সুপারিশের ভিত্তিতে তাঁর বিরুদ্ধে মামলা করার জন্য রাষ্ট্রপতি রামনাথ কোবিন্দ সবুজ সংকেত দেওয়ায় বুধবার বিশ্বভারতীর প্রাক্তন উপাচার্যের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করে সিবিআই।

ধারাবাহিকভাবে পাশে থাকার জন্য The Bengal Story র পাঠকদের ধন্যবাদ। আমরা যে ধরনের খবর করি, তা আরও ভালোভাবে করতে আপনাদের সাহায্য আমাদের উৎসাহিত করবে।

Login Support us

You may also like

Weather Forecast In Durga Puja