পিএম কেয়ার্সের টাকায় কেন্দ্রকে টিকা কিনে রাজ্যে সরবরাহ করতে হবে, দাবি জানালেন ইয়েচুরি

সীতারাম ইয়েচুরির স্পষ্ট দাবি, কেন্দ্রকে টিকা কিনে তা বিনামূল্যে রাজ্যে রাজ্যে সরবরাহ করতে হবে

ভ্যাকসিন প্রস্তুতকারক সংস্থা সিরাম ইন্সটিটিউটের পক্ষ থেকে জানানো হয়, রাজ্যগুলিকে ভ্যাকসিন দেওয়া হবে ৪০০ টাকা, সেখানে কেন্দ্র সরকারের জন্য ধার্য করা হয়েছে ১৫০ টাকা। প্রাইভেট হাসপাতালগুলিকে ৬০০ টাকা করে।

সিরামের ঘোষণার ছবি ট্যুইট করে কেন্দ্রীয় সরকারের সার্বিক টিকাকরণ কর্মসূচির তীব্র সমালোচনা করলেন সিপিএমের সাধারণ সম্পাদক সীতারাম ইয়েচুরি।

ট্যুইটে লেখেন, কেন্দ্রের সার্বিক টিকা নীতি মেনে নেওয়া যায় না। কেন্দ্রকে ভ্যাকসিন কিনে তা স্বচ্ছ নিয়মে বিনামূল্যে রাজ্যগুলোকে সরবরাহ করতে হবে।

তারপর সিপিএম নেতার খোঁচা, পিএম কেয়ার্স ফান্ডে যে কয়েক লক্ষ কোটি টাকা পড়ে রয়েছে তা দিয়েই ভ্যাকসিন কিনতে হবে বলেও দাবি করেন সীতারাম।
তাঁর সংযোজন, গত ৭০ বছরে ভারতে বরাবর বিনামূল্যে সার্বিক টিকাকরণ হয়ে এসেছে।

সীতারাম ইয়েচুরির স্পষ্ট দাবি, কেন্দ্রকে টিকা কিনে তা বিনামূল্যে রাজ্যে রাজ্যে সরবরাহ করতে হবে। তাঁর অভিযোগ, খোলা বাজার থেকে রাজ্য বা বেসরকারি হাসপাতালকে টিকা সংগ্রহ করতে বলার অর্থ হল কালোবাজারিকে মান্যতা দেওয়া।

ভারত সরকার সম্প্রতি কয়েকশো কোটি টাকা ঋণ দিয়েছে সেরাম এবং ভারত বায়োটেককে। বুধবার সেরাম জানায়, তারা ১৫০ টাকায় কেন্দ্রকে টিকা দেবে। রাজ্য সরকারের কাছে নেবে ৪০০ টাকা। ওই একই টিকা বেসরকারি হাসপাতালে দেওয়া হলে নেওয়া হবে ৬০০ টাকা। এই সিদ্ধান্ত ঘোষণার পরই তোলপাড় পড়ে যায় রাজনৈতিক মহলে। প্রশ্ন ওঠে, ফেব্রুয়ারি মাসে যখন মমতা ব্যানার্জি চিঠি লিখে রাজ্যের তরফে টিকা কিনে নেওয়ার প্রস্তাব দেন, তখন তা ফিরিয়ে দেয় কেন্দ্র। তাহলে এতদিন পর মমতার দেওয়া প্রস্তাব কেন মেনে নিতে হচ্ছে মোদী সরকারকে? ইতিমধ্যেই কেন্দ্রের টিকা নীতির তীব্র সমালোচনা করে মোদীকে চিঠি দিয়েছেন বাংলার মুখ্যমন্ত্রী মমতা এবং কেরলের মুখ্যমন্ত্রী পিনারাই বিজয়ন। এবার টিকার দাম নিয়ে গুরুতর প্রশ্ন তুললেন সীতারাম ইয়েচুরি।

Comments
Loading...