এনআরসি, নাগরিকত্ব বিল নিয়ে ২০ ডিসেম্বর দলের বৈঠক ডাকলেন মমতা ব্যানার্জি

নাগরিকত্ব সংশোধনী বিল নিয়ে ভবিষ্যৎ আন্দোলনের রূপরেখা স্থির করার জন্য জরুরি বৈঠক ডাকলেন তৃণমূল (TMC) নেত্রী মমতা ব্যানার্জি। আগামী ২০ ডিসেম্বর তৃণমূল ভবনে ওই বৈঠকে দলের সর্ব স্তরের কর্মকর্তা, বিধায়ক, সাংসদ ও অন্য নির্বাচিত জন প্রতিনিধিদের থাকতে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। মমতা ইতিমধ্যেই বুঝিয়ে দিয়েছেন, এনআরসি এবং নাগরিকত্ব বিল নিয়ে বিজেপিকে এক ইঞ্চিও জমি ছাড়া হবে না। কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ যতবার বলছেন, ২০২৪ সালের লোকসভা ভোটের আগেই গোটা দেশে এনআরসি হবে, ততবারই মমতা পাল্টা বলছেন, প্রাণ থাকতে বাংলায় এনআরসি এবং নাগরিকত্ব সংশোধনী বিল লাগু করতে দেওয়া হবে না। ২০২১ সালের বিধানসভা ভোট এখন বিজেপির পাখির চোখ। সাম্প্রতিক উপনির্বাচনে বিজেপির ধাক্কআ খাওয়ার একটা বড় কারণ হল এনআরসি নিয়ে প্রচার। তৃণমূল (TMC) এনআরসি বিরোধী প্রচার চালিয়ে আমজনতাকে এটা বোঝাতে সক্ষম হয়েছে যে, এনআরসি করে বিজেপি বাংলা থেকে নাগরিকদের তাড়াতে চাইছে। এনআরসি এবং নাগরিকত্ব বিল বাঙ্গালিদের উপর আঘাত হানবে বলেও তৃণমূল প্রচার করছে। উপনির্বাচনে তৃণমূল তার সুফলও পেয়েছে। নেত্রী এটাও বুঝেছেন, আগামী দিনে বিজেপি এই দুটি বিষয়কেই হাতিয়ার করে বাংলায় প্রচার চালাবে। কাজেই দলকে এখনই এর বিরুদ্ধে মাঠে নামানো দরকার।
দলীয় সূত্রের খবর, এই কারণেই মমতা দলের নেতা-কর্মী-জন প্রতিনিধিদের বৈঠক করে কিছু কর্মসূচি দিতে চান। তিনি চান, খুব দ্রুত দলের নিচুতলা থেকে উপরতলার নেতারা এনআরসি এবং নাগরিকত্ব বিলের বিরুদ্ধে পাল্টা প্রচারে নেমে পড়ুন। কেমন করে বিজেপির মোকাবিলা করা যায়, তা নিয়ে ২০ তারিখের বৈঠকে আলোচনা করবেন তিনি। দলের অন্দরের খবর, ওই বৈঠকে ভোট কুশলী প্রশান্ত কিশোরও উপস্থিত থাকতে পারেন।

Comments
Loading...