১৪ দিনে রাজ্যে সুস্থতার হার ৫% বৃদ্ধি পেয়ে পৌঁছাল ৭৫ শতাংশে, সংক্রমণ কমেছে প্রায় ৩ শতাংশ

দু’সপ্তাহে রাজ্যে সুস্থতার হার বৃদ্ধি পেল ৫ শতাংশ। করোনা পরীক্ষার সংখ্যা ব্যাপকভাবে বৃদ্ধি পাওয়ায় সংক্রমিতের সংখ্যা যেভাবে বেড়েছে, তা সত্ত্বেও সুস্থতার হার ৭৫ শতাংশ ছাড়িয়ে গেল বাংলায়। যা জাতীয় সুস্থতার হারের তুলনায় অনেকটাই বেশি।
১৭ অগাস্ট রাজ্য স্বাস্থ্য দফতরের প্রকাশিত পরিসংখ্যান বিশ্লেষণ করলে দেখা যাচ্ছে এই মাসের শুরুর তুলনায় বর্তমানে বাংলায় সংক্রমণের হার কমেছে প্রায় ৩ শতাংশ। সুস্থতার হার ছাড়িয়েছে ৭৫ শতাংশ।
কিট সমস্যার কারণে শুরুতে রাজ্যে করোনা পরীক্ষায় সাময়িক সমস্যা হলেও অগাস্ট মাসের পরিসংখ্যান দেখলে বোঝা যাচ্ছে, দেশের অনেক রাজ্যের তুলনায় টেস্ট বেশি হচ্ছে বাংলায়। জুলাই মাসের মাঝামাঝি মুখ্যমন্ত্রী বলেছিলেন, স্বাধীনতা দিবসের মধ্যে রাজ্যে দৈনিক ২৫ হাজার টেস্ট হবে। কার্যক্ষেত্রে দেখা গেল, মুখ্যমন্ত্রীর দেওয়া টার্গেট ছাপিয়ে গিয়েছে নির্ধারিত সময়ের আগেই। ১৭ অগাস্ট, সোমবার রাজ্যে টেস্ট হয়েছে ৩২,৩১৯ টি।
এবার সংখ্যাতত্ত্বের হিসেব পর্যালোচনা করে দেখা যাক, রাজ্যে কী অবস্থা সংক্রমণের হারের?
৩ অগাস্ট রাজ্যে পজিটিভিটি রেট ছিল ১২.২৭ শতাংশ। সেদিন মোট টেস্ট হয়েছিল ২২,১২২ টি এবং নতুন সংক্রমিত ২,৭১৬ জন।
এই পরিসংখ্যান প্রকাশ পাওয়ার পর কেটে গিয়েছে ২ সপ্তাহ। কী অবস্থা বর্তমান বাংলার?
রাজ্য স্বাস্থ্য দফতরের সর্বশেষ পরিসংখ্যান অনুযায়ী, ১৭ অগাস্ট, সোমবার রাজ্যে মোট নমুনা পরীক্ষা হয়েছে ৩২,৩১৯ টি। তার মধ্যে নতুন সংক্রমণ ধরা পড়েছে ৩,০৮০ জনের। সুস্থতার হার ৭৫.০২ শতাংশ। মোট পরীক্ষার নিরিখে নয়া সংক্রমণের হার ৯.৫২ শতাংশ। অর্থাৎ, প্রতি ১০০ টি নমুনা পিছু প্রায় ১০ জনের কম সংক্রমণ ধরা পড়ছে, যা ৩ তারিখ ছিল ১২ শতাংশের বেশি।
জুলাইয়ের শেষ সপ্তাহ থেকে অগাস্ট মাসের প্রথম সপ্তাহের মধ্যে বাংলায় ৩ শতাংশ সংক্রমণ কমার ইঙ্গিত মিলেছিল। অগাস্টের মাঝামাঝি এসে দেখা যাচ্ছে সংক্রমণ কমেছে আরও ২.৭৫ শতাংশ।
এই পরিসংখ্যান থেকে একটা জিনিস পরিষ্কার, রাজ্যে সংক্রমিতের সংখ্যা বাড়ছে ঠিক কথা, কিন্তু যে পরিমাণ নমুনা পরীক্ষা হচ্ছে তার নিরিখে সংক্রমণের বৃদ্ধির হার কিন্তু ক্রমেই কমছে। যাকে রূপোলি রেখা হিসেবে চিহ্নিত করছেন স্বাস্থ্য বিশেষজ্ঞরা।

Comments
Loading...