বাবরি ধ্বংসের অভিযুক্তদের দ্রুত শাস্তি চায় সিপিএম, শান্তি বজায় রাখার আবেদন জানিয়ে বিবৃতি পলিটব্যুরোর

অযোধ্যা মামলার রায়ের প্রতিক্রিয়ায় ১৯৯২ সালে বাবরি মসজিদ ধ্বংসের ঘটনায় দোষীদের শাস্তির দাবি তুলল সিপিএম। দলের সাধারণ সম্পাদক সীতারাম ইয়েচুরি পলিটব্যুরোর তরফে এক বিবৃতিতে ওই রায়কে স্বাগত জানিয়েও কিছু প্রশ্ন তুলেছেন। ওই বিবৃতিতে বাবরি মসজিদ ধ্বংস মামলা ত্বরান্বিত করার দাবি জানানো হয়েছে। প্রেস বিবৃতিতে বলা হয়েছে, সাম্প্রদায়িক শক্তি কাজে লাগিয়ে বহু মানুষের জীবন কেড়ে নেওয়া অযোধ্যা মামলার রায়ে সুপ্রিম কোর্টে সাংবিধানিক বেঞ্চ জমি জটিলতার দ্রুত সমাধান চেয়েছিল। সুখের কথা, এই রায়ে জটিলতা অনেকটাই কেটেছে। সিপিএম-ও বিচার ব্যবস্থার মাধ্যমেই ওই জটিলতার সমাধান চেয়েছিল।
সিপিএমের বক্তব্য, সাংবিধানিক বেঞ্চের রায়ে বাবরি মসজিদ ধ্বংসের ঘটনাকে গর্হিত অপরাধ বলে উল্লেখ করা হয়েছে। আরও বলা হয়েছে, ওই ঘটনায় আইনকে অমান্য করা হয়। শুধু তাই নয়, বাবরি মসজিদ ধ্বংস করা ভারতের ধর্মনিরপেক্ষতা নীতির ওপরই আঘাত হানার সামিল। তাই ওই ঘটনায় যারা জড়িত ছিল তাদের শাস্তি দেওয়া উচিত। রায়ের এই দিকটির কথা উল্লেখ করে সিপিএম-ও দোষীদের শাস্তির দাবি জানিয়েছে। সিপিএমের আরও বক্তব্য এই রায়কে ঢাল করে কেউ যাতে কোনও উত্তেজনা না ছড়ায় সেদিকে নজর দিতে হবে।
অযোধ্যা রায় নিয়ে দলের রাজ্য সম্পাদক সূর্যকান্ত মিশ্রও ট্যুইট করেন। তিনি লেখেন, সুপ্রিম কোর্টের রায় হোক বা ঝড়বৃষ্টির দাপট, তাঁরা অসহায় মানুষের পক্ষে রয়েছেন। অযোধ্যা রায়ের পর মানুষ যেন কোনও প্ররোচনায় পা না দেন, সে ব্যাপারে সতর্ক থাকতে বলেছেন সূর্যকান্ত বাবু।

Comments
Loading...