আইন মেনে ব্যবসা করুন, অ্যামাজন সহ ই-কমার্স সংস্থাগুলিকে সতর্ক করল কেন্দ্র

সস্তায় জিনিস বিক্রিতে লাগাম টানতে হবে। ছোট খুচরো ব্যবসায়ীদের সঙ্গে নিয়ে চলতে হবে ই-কমার্স সংস্থাগুলিকে। এই ভাষাতেই  অ্যামাজন ইন্ডিয়া-র প্রধান অমিত আগরওয়ালকে সতর্ক করলেন কেন্দ্রীয় বাণিজ্য ও শিল্পমন্ত্রী পীযূষ গোয়েল।
স্বল্প দামে পণ্য বিক্রি করে বলে মার্কিন ই-কমার্স সংস্থা অ্যামাজনের বিরুদ্ধে বহু পুরনো অভিযোগ। অ্যামাজন, ফ্লিপকার্টের মতো ই-কমার্স সংস্থাগুলির ‘অনৈতিক’ ব্যবসায় খুচরো ব্যবসায়ীরা চরম সঙ্কটে। এ নিয়ে এবার কেন্দ্র তাদের অবস্থান স্পষ্ট করে দিল। গত মঙ্গলবার কেন্দ্রীয় বাণিজ্যমন্ত্রী পীযূষ গোয়েলের সঙ্গে বৈঠক করেন অ্যামাজন ইন্ডিয়ার অমিত আগরওয়াল। সূত্রের খবর, সেখানেই স্পষ্ট বার্তা দেওয়া হয়, ই-কমার্স সংস্থাগুলির যথেচ্ছ ব্যবসা নীতি বরদাস্ত করা হবে না। ব্যবসায়িক স্বার্থে বিপুল ছাড় দিয়ে জিনিস বেচার নীতি পরিবর্তন না হলে বিদেশি ই-কমার্স সংস্থাগুলির বিরুদ্ধে কড়া পদক্ষেপ করবে কেন্দ্র। কেন্দ্রের শিল্পোন্নয়ন ও অভ্যন্তরীণ বাণিজ্য দফতরের (ডিপিআইআইটি) তরফেও ই-কমার্স সংস্থাগুলিকে একই বার্তা দেওয়া হয়েছে।
সমস্যার সূত্রপাত বেশ কয়েক বছর আগে। কনফেডারেশন অফ অল ইন্ডিয়া ট্রেডার্স (সিএআইটি) বারবার অ্যামাজন, ফ্লিপকার্টের ডিসকাউন্ট দিয়ে ব্যবসা করার নীতির বিরোধিতা করেছে। সম্প্রতি এই বিরোধিতায় যুক্ত হয়েছে অল ইন্ডিয়া মোবাইল রিটেলারস অ্যাসোসিয়েশন (এআইএমআরএ)। সবারই অভিযোগ, বিদেশি প্রত্যক্ষ বিনিয়োগ (এফডিআই) নীতির তোয়াক্কা না করেই ব্যবসা চালাচ্ছে ফ্লিপকার্ট, অ্যামাজন। ই-কমার্স সংস্থাগুলির এই অনৈতিক ব্যবসার দাপটে খুচরো ব্যবসায়ীরা ব্যাপক আর্থিক ক্ষতির মুখে পড়ছেন।
যদিও অ্যামাজন এবং ফ্লিপকার্টকে কিনে নেওয়া মার্কিনি সংস্থা ওয়ালমার্টের দাবি, তারা বিদেশি বিনিয়োগ নীতি মেনেই ব্যবসা করছে। এ নিয়ে সেপ্টেম্বরে প্রধানমন্ত্রীকে চিঠিও দেয় ওয়ালমার্ট। তাদের দাবি, নির্দিষ্ট কিছু ব্র্যান্ডের জিনিসেই ছাড় দেওয়া হয়। পাশাপাশি, ভারতে স্থিতিশীল ব্যবসায়িক পরিবেশ চেয়ে মোদীকে আবেদনও করেন ওয়ালমার্টের সিইও ডগ ম্যাকমিলন। যদিও খুচরো ব্যবসায়ীদের পাল্টা দাবি, তারা এইভাবে বিপুল ছাড় দিয়ে ব্যবসা করতে পারে না। এই বিতর্ক নিয়ে গত মাসে পীযূষ গোয়েল জানিয়েছিলেন, সংশ্লিষ্ট ই-কমার্স সংস্থাগুলির বিরুদ্ধে যে অভিযোগ উঠেছে তা খতিয়ে দেখা হবে। মঙ্গলবার এ নিয়েই ফ্লিপকার্ট ও অ্যামাজন ইন্ডিয়াকে সতর্ক করল কেন্দ্র।

Comments
Loading...