কর্মসংস্থানের সুযোগ: কগনিজেন্টের ছেড়ে দেওয়া ২ হাজার কোটি টাকার কাজ পেতে ঝাঁপাচ্ছে জেনপ্যাক্ট, উইপ্রো

কনটেন্ট মডারেশন ক্ষেত্র থেকে সরে আসার কথা কিছুদিন আগেই ঘোষণা করেছিল কগনিজেন্ট। এবার কগনিজেন্টের ছেড়ে যাওয়া কনটেন্ট মডারেশনের কাজের বরাত পেতে ঝাঁপাচ্ছে দেশের অন্যান্য তথ্যপ্রযুক্তি সংস্থাগুলো। বিশেষজ্ঞরা বলছেন, কগনিজেন্ট সরে আসায় এই সেক্টরে কাজের সুযোগ বাড়বে, লাভবান হবে অন্যান্য তথ্যপ্রযুক্তি সংস্থা।

এতদিন কগনিজেন্ট যে কনটেন্ট মডারেশনের কাজ করত, তাদের অন্যতম ক্লায়েন্ট ছিল ফেসবুক। সম্প্রতি সংস্থার কর্মী বাহিনীকে পুনর্গঠনের সিদ্ধান্ত নিয়েছে কগনিজেন্ট। কোর সেক্টরে আরও বেশি জোর দিতে তারা কনটেন্ট মডারেশনের কাজ থেকে সরে আসবে বলে জানিয়েছে। এর ফলে বছরে প্রায় ২ হাজার কোটি টাকার (২৫০ মিলিয়ন ডলার) কাজের বাজার তৈরি হবে। বছর বছর তা আরও বাড়বে বৈকি।

কগনিজেন্ট সরে আসায় সরাসরি লাভবান হবে জেনপ্যাক্ট। অ্যাকসেঞ্চার এবং উইপ্রোর মত সংস্থাও লাভবান হবে, মনে করছেন বাজার বিশেষজ্ঞরা। যে সংস্থাগুলোকে কগনিজেন্ট এতদিন পরিষেবা দিয়ে এসেছে, পরিবর্তিত পরিস্থিতিতে তারা নতুন তথ্যপ্রযুক্তি সংস্থার দ্বারস্থ হবে। এই সংক্রান্ত প্রোজেক্ট নতুন করে নিলাম হ বে। বরাত পাবে জেনপ্যাক্ট, অ্যাকসেঞ্চার বা উইপ্রোর মত সংস্থা। বিশ্লেষকরা বলছেন, ইতিমধ্যে কগনিজেন্টের ছেড়ে দেওয়া বেশ কিছু কাজের বরাত পেয়েও গিয়েছে জেনপ্যাক্ট।

বিশেষজ্ঞরা বলছেন, কগনিজেন্ট যে বিপুল কাজের বরাত পেত, তা এখন সরাসরি ভাগ হবে অন্যান্য সংস্থার মধ্যে। কিন্তু উইপ্রো, জেনপ্যাক্টের মত সংস্থার সুবিধা হল, এই বাজারের সবচেয়ে বড় প্রতিযোগী কগনিজেন্ট সম্পূর্ণভাবে এই কাজ থেকে সরে যাচ্ছে, ফলে তাদের সামনে এখন কার্যত খোলা মাঠ। এই প্রক্রিয়ায় আরও কিছুদিন সময় লাগবে বলেই মনে করছেন বাজার বিশেষজ্ঞরা। সম্প্রতি কগনিজেন্টের সিএফও কারেন ম্যাকলাফলিন জানিয়েছেন, আগামী বছরের মধ্যে সংস্থা কনটেন্ট মডারেশনের ব্যবসা থেকে ধাপে ধাপে সরে আসার প্রক্রিয়া সম্পন্ন হয়ে যাবে। ফলে এই ব্যবসায় কগনিজেন্টের বিপুল বাজার হস্তগত হবে একদা তারই প্রতিযোগী সংস্থাগুলোর।

সম্প্রতি সংস্থায় খরচ কমানো সহ একাধিক পদক্ষেপ নিয়েছে কগনিজেন্ট। নিজেদের কোর সেক্টরে আরও বেশি পুঁজি এবং মানব সম্পদ নিয়োজিত করার লক্ষ্যে বিভিন্ন কাজ, যা কগনিজেন্ট আগে করত, তা থেকে সরে আসছে তারা। কনটেন্ট মডারেশন তার মধ্যে অন্যতম। ফেসবুকের মত সংস্থার হয়ে কগনিজেন্ট এতদিন অনলাইন ইউজার কনটেন্ট মনিটর করত। কিন্তু এখন সেই ব্যবসা থেকে সরে আসার ফলে, পোয়াবারো জেনপ্যাক্ট, উইপ্রোর মত সংস্থার।

Comments
Loading...