লখিমপুর নিয়ে কংগ্রেসের নেতৃত্বে বিরোধীরা ঘুরে দাঁড়াতে পারবে না, ট্যুইট প্রশান্ত কিশোরের 

সম্প্রতি তাঁর কংগ্রেসে যোগদানের জল্পনায় সরগরম হয়ে উঠেছিল জাতীয় রাজনীতি। রাহুল গান্ধী, প্রিয়াঙ্কা গান্ধীর সঙ্গে সাক্ষাৎ-এর পর সেই জল্পনা তুঙ্গে ওঠে। কিন্তু শুক্রবারের একটি ট্যুইটে নিজেই সেই জল্পনায় জল ঢাললেন পেশাদার ভোটকুশলী প্রশান্ত কিশোর। 

শুক্রবার একটি ট্যুইটে কংগ্রেসকে গ্র্যান্ড ওল্ড পার্টি বলে কটাক্ষ করে পিকে লেখেন, লখিমপুরের ঘটনায় কংগ্রেসের নেতৃত্বে বিরোধীদের দ্রুত ঘুরে দাঁড়ানোর সম্ভাবনা দেখে যাঁরা আশায় বুক বাঁধছেন তাঁদের জন্য হতাশা অপেক্ষা করছে। 

ট্যুইটার দ্বিতীয় অংশ কংগ্রেসকে নিয়ে পিকে আরও বলেন, দুঃখের বিষয় প্রাচীন এই দলের গভীরে কিছু সমস্যা রয়েছে এবং কাঠামোগত কিছু দুর্বলতা রয়েছে যার দ্রুত কোনও সমাধান নেই। 

 লখিমপুরের খেরিতে পৌঁছতে গিয়ে আটক হন কংগ্রেস নেত্রী তথা উত্তরপ্রদেশের দায়িত্বে থাকা প্রিয়াঙ্কা গান্ধী। পরে রাহুল, প্রিয়াঙ্কা সহ কংগ্রেসের পাঁচ প্রতিনিধি দল নিহত কৃষকদের পরিবারের সঙ্গে দেখা করেন। তবে এই গোটা ঘটনার জেরে জাতীয় রাজনীতিতে কংগ্রেস যে বিশেষ প্রভাব ফেলতে পারবে না এদিন ট্যুইটে তাই জানিয়েছেন প্রশান্ত কিশোর। 

উল্লেখ্য, কংগ্রেসে পিকের যোগদান নিয়ে যখন জল্পনা তুঙ্গে সে সময় কংগ্রেসের এক পক্ষ নাকি পিকের যোগদান নিয়ে বেঁকে বসেন। পিকে-কে নিয়ে আলোচনার মধ্যেই কংগ্রেসে যোগ দেন বাম রাজনীতির পোস্টার বয় কানাইয়া কুমার এবং গুজরাটের নির্দল বিধায়ক তথা দলিত নেতা জিগনেস মেবানী। 

Comments
Loading...