রেলের মতো দূরপাল্লার বাসেও মিলবে সস্তায় খাবার, নয়া উদ্যোগ নিল SBSTC

‘জন আহার’। এতদিন এর সঙ্গে পরিচিত ছিলেন কেবলমাত্র রেলযাত্রীরা। এবার দক্ষিণবঙ্গ রাষ্ট্রীয় পরিবহণ সংস্থার (SBSTC) উদ্যোগে এই সুবিধা পাবেন বাসযাত্রীরাও। রেলের মতোই দূরপাল্লার বাসেও যাত্রীদের জন্য সস্তায় পুষ্টিকর খাবার বিক্রির উদ্যোগ নিচ্ছে দক্ষিণবঙ্গ রাষ্ট্রীয় পরিবহণ সংস্থা।

দূরপাল্লার এই নীল-সাদা বাসগুলিতে টানা কয়েক ঘণ্টা জার্নি করতে হয় যাত্রীদের। তাতে খাবারের প্রয়োজন তো পড়েই। তাই যাত্রীরা যাতে কন্ডাক্টর বা চালকের কাছ থেকে সস্তায় ভালো স্বাস্থ্যকর খাবার কিনে খেতে পারেন সেই লক্ষ্যেই পদক্ষেপ করছে এসবিএসটিসি। বুধবার সাংবাদিক বৈঠক করে উদ্যোগের কথা জানান এসবিএসটিসির চেয়ারম্যান দীপ্তাংশু চৌধুরী। সংস্থার দেওয়া খাবারের প্যাকেটের দাম রাখা হবে ২০ থেকে ৩০ টাকার মধ্যে। তবে ঠিক কবে থেকে বাসে এই খাবার মিলতে পারে তা এখনও স্পষ্ট নয়।

দুর্গাপুরে হওয়া ওই সাংবাদিক বৈঠকে বাস পরিচ্ছন্ন করার বিশেষ পদ্ধতি চালু করার কথাও বলেছেন চেয়ারম্যান। জানানো হয়, শক্তিগড়ে পিপিপি মডেলে বিশেষ শৌচালয় ব্লক প্রস্তুত করারও উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে। মঙ্গলবারই আইএসও-র শংসাপত্র পেয়েছে এসবিএসটিসি। সেই উপলক্ষে দুর্গাপুর সিটি সেন্টারে সাংবাদিক সম্মেলনের আয়োজন করে সংস্থা। সেখানে আইএসওর শংসাপত্র পাওয়ার বিষয়ে জানানোর পাশাপাশি বাস যাত্রীদের জন্য খাবার বিক্রির এই অভিনব উদ্যোগের কথা ঘোষণা হয়। করোনা পরিস্থিতিতে দুর্গাপুর ডিপোতে বাস পরিচ্ছন্ন করার একটি বিশেষ সিস্টেম চালু হচ্ছে। প্রথমে বিশাল আকারের শাওয়ারের নীচে নিয়ে গিয়ে ধোয়া হবে বাস। তারপর ব্লোয়ারের সাহায্যে বাসের ধুলো ও আবর্জনা পরিষ্কার করা হবে। তৃতীয় ধাপে জানালা, দরজা বিশেষভাবে পরিচ্ছন্ন করা হবে। আর সব শেষে হবে স্যানিটাইজ করার কাজ। পুরো প্রক্রিয়া শেষ হতে লাগবে মাত্র ১৬ মিনিট। দুর্গাপুরে চালু হওয়া ক্লিনিং সিস্টেম সফল হলে অন্যান্য বাস ডিপোতেও একইভাবে বাস পরিচ্ছন্ন করা হবে বলে জানিয়েছে এসবিএসটিসি।

Comments
Loading...