অবশেষে জি এন্টারটেইনমেন্টের শীর্ষ পদ থেকে ইস্তফা সুভাষ চন্দ্রের

জি এন্টারটেইনমেন্টের চেয়ারম্যান পদ থেকে ইস্তফা দিলেন সংস্থার প্রতিষ্ঠাতা সুভাষ চন্দ্র। খবরের সত্যতা স্বীকার করে সোমবার সংস্থাটির পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, সেবির নিয়ম মেনেই সুভাষ চন্দ্রের পদত্যাগপত্র গৃহীত হয়েছে। এর পাশাপাশি আরও জানানো হয়েছে নতুন করে গঠন করা হয়েছে সেখানে সংস্থার বোর্ড। সেখানে নয়া তিনজনকে স্বাধীন ডিরেক্টরের পদ দেওয়া হয়েছে। এই তিনজন হলেন আর গোপালন, সুরেন্দ্র সিংহ এবং অর্পিতা জৈন। এর ফলে বোর্ডে মোট ৬ জন স্বাধীন ডিরেক্টর হলেন এবং এসেল গোষ্ঠীর দুজন সদস্য থেকে গেলেন বোর্ডে। এই সিদ্ধান্ত সংস্থাকে আরও শক্তিশালী করবে এবং বিনিয়োগকারীদের আকৃষ্ট করবে বলেই মনে করছে বোর্ড।
কয়েক বছর ধরেই ঋণের বোঝা বাড়ছিল সুভাষ চন্দ্রের সংস্থার। চলতি বছরের গোড়াতেই জি এন্টারটেইনমেন্ট-এর ১১ শতাংশ শেয়ার প্রায় ৪ হাজার ২২৪ কোটি টাকার বিনিময় ইনভেস্কো ওপেনহেমার ডেভেলপিং মার্কেটস ফান্ডকে বেচে দেওয়া হয়।
আটলান্টার এই সংস্থার হাতে আগে থেকেই জি এন্টারটেনমেন্টের ৭.৭ শতাংশ শেয়ার ছিল। এর আগে গত বুধবার সংস্থার তরফে জানানো হয়েছিল, ঋণ পরিশোধের জন্য জি এন্টারটেইনমেন্ট-এর ১৬.৫ শতাংশ শেয়ার বিক্রির সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। এই সিদ্ধান্ত কার্যকর হলে এমনিতেও সুভাষ চন্দ্রের হাতে থাকা সংস্থার অংশীদারিত্ব ৫ শতাংশের নীচে নেমে আসতো। ফলে সংস্থার নিয়ন্ত্রণ আর তাঁর হাতে থাকতো না।
সুভাষ চন্দ্রের পাশাপাশি পদত্যাগ করেছেন সংস্থার এম সেক্রেটারি লক্ষীনারায়নও। তাঁর জায়গায় এসেছেন আশিস আগরওয়াল। তবে আপাতত সংস্থার নন এক্সেকিউটিভ ডিরেক্টর পদে থেকে যাচ্ছেন সুভাষ চন্দ্র।
১৯৯২ সালে তাঁর হাত ধরেই পথ চলা শুরু হয়েছিল এই সংস্থাটির। ২০১৮-১৯ অর্থবছরে মোট ৬ হাজার ৮৫৭. ৮৬ কোটি টাকা লাভ হয়েছিল জি এন্টারটেইনমেন্ট-এর।

Comments
Loading...