মধ্যপ্রদেশের বাসিন্দাকে পাশে নিয়ে হিন্দিতে সোনার বাংলা গড়ার দাবি এক গুজরাতির! খোঁচা তৃণমূল-বামের

রবিবার ইশতেহার প্রকাশের পরই বিজেপির ‘সোনার বাংলা সঙ্কল্পপত্র’ নিয়ে খোঁচা দিয়ে টুইট করেন তৃণমূল সাংসদ ডেরেক ও’ব্রায়েন।

ইশতেহার নিয়েও বিজেপির দিকে ধেয়ে গেল বহিরাগত আক্রমণ। পাশাপাশি টুকে ইশতেহার করার অভিযোগ তৃণমূলের। একই অভিযোগে সোচ্চার বামেরাও। সবমিলিয়ে বঙ্গ বিজেপির সঙ্কল্পপত্র নিয়ে কটাক্ষের সুর।
রবিবার ইশতেহার প্রকাশের পরই বিজেপির ‘সোনার বাংলা সঙ্কল্পপত্র’ নিয়ে খোঁচা দিয়ে টুইট করেন তৃণমূল সাংসদ ডেরেক ও’ব্রায়েন। ব্যঙ্গ করে লেখেন, একজন গুজরাটি এবং অপরজন মধ্য প্রদেশের বাসিন্দা, দু’জনেই হিন্দিতে ভাষণ দিয়ে সোনার বাংলা গড়ার প্রতিশ্রুতি দিচ্ছেন!

রবিবার বিকেলে ইজেডসিসিতে বিজেপির নির্বাচনী ইশতেহার প্রকাশ হয়েছে। সেই ইশতেহারের গুরুত্বপূর্ণ অংশ পড়ে শুনিয়েছেন অমিত শাহ। তিনি গুজরাতের বাসিন্দা। একইভাবে বাংলায় বিজেপির দায়িত্বপ্রাপ্ত কেন্দ্রীয় পর্যবেক্ষক কৈলাস বিজয়বর্গীয়ও মধ্যপ্রদেশের লোক। ডেরেকের খোঁচা, এক গুজরাতবাসী (পড়ুন অমিত শাহ) এবং এক মধ্যপ্রদেশের বাসিন্দা (পড়ুন কৈলাস বিজয়বর্গীয়) ‘সোনার বাংলা’ গড়ার প্রতিশ্রুতি দিচ্ছেন!
উল্টোদিকে একই কথা অভিষেক ব্যানার্জিরও। রবিবার তিনিও টুইটে লিখলেন, একদল পর্যটক বাংলায় ঘুরতে এসে সোনার বাংলা গড়ার ইস্তেহার প্রকাশ করছেন! যে দল ২৯৪ আসনে প্রার্থী ঘোষণা করতে পারে না তারা আবার ইস্তেহার প্রকাশ করছে!

বিজেপির সঙ্কল্পপত্রে উল্লেখ রয়েছে সরকারি বাসে ফ্রিতে মহিলাদের যাতায়াতের কথা। অথচ দিল্লির কেজরিওয়াল সরকার একই সিদ্ধান্ত নেওয়ায় তার তীব্র বিরোধিতা করেছিল বিজেপি। শুধু তৃণমূলই নয়, বিজেপির সঙ্কল্পপত্র নিয়ে কটাক্ষ করতে ছাড়েনি বামেরাও। তাঁদের দাবি, বামেদের ইশতেহার থেকে টুকে নিজেদের ইশতেহার প্রকাশ করেছে বিজেপি।

Comments
Loading...