মমতা ব্যানার্জি: আমাকে যে চা দেয়, যে অফিসে ফোন ধরে, তাদেরও কোভিড হয়েছে, সবচেয়ে বড়ো প্যানডেমিক তো বিজেপি

দেশে করোনা সংক্রমণ গোষ্ঠী স্তরে পৌঁছে গিয়েছে। আমাকে যে চা দেয়, যে অফিসে ফোন ধরে, তাদেরও করোনা হয়েছে। আমরা রাজনৈতিক কর্মসূচি বন্ধ রেখেছি। বিজেপি কিছুই মানছে না। শনিবার গান্ধী মূর্তির পাদদেশ থেকে মমতা ব্যানার্জির তোপ, বিজেপিই সবচেয়ে বড়ো প্যানডেমিক।

সেই সঙ্গে প্রকাশ্য জনসভায় মমতার ঘোষণা, দেশে করোনা কমিউনিটি ট্রান্সমিশন বা গোষ্ঠী সংক্রমণ স্তরে পৌঁছে গিয়েছে। অবশ্য নবান্ন আগেই এই অভিমত ব্যক্ত করেছিল। গোষ্ঠী সংক্রমণের পর্যায়ে যখন কোনও সাবধানতাই যথেষ্ট নয়, তখন বিজেপিকেই করোনা ছড়ানোর জন্য দায়ী করলেন তৃণমূল নেত্রী।

এদিকে ভারতের করোনায় মৃতের সংখ্যা ১ লক্ষ পেরিয়ে গিয়েছে। মৃতের এবং সংক্রমিতের সংখ্যায় এক নম্বরে মহারাষ্ট্র। বাংলায় পরিস্থিতি তুলনায় ভালো বলে মনে করছেন বিশেষজ্ঞরা। সুস্থতার হার ক্রমেই বৃদ্ধি পেতে পেতে ৯০ শতাংশের কাছাকাছি। তবে পুজোর মরসুমে সংক্রমণ বৃদ্ধি পেতে পারে বলে আশঙ্কা প্রকাশ করেছিলেন মুখ্য মন্ত্রী নিজেও। তিনি এদিন বলেন, পুজোর সময় মেলামেশা কিছুটা হলেও বাড়বে। তাই সতর্কতা অবলম্বন করাই একমাত্র পথ। এদিন দেবীপক্ষের শুরু পর্যন্ত তৃণমূলে কর্মসূচি বেঁধে দেন দল নেত্রী। বলেন প্রতিদিন সমস্ত মানুষকে সঙ্গে নিয়ে প্রতিবাদ, পোস্টারিং করতে হবে।

Comments
Loading...