মন খারাপ করে রাতে ঘুমোতে যেতে হবে না যুব সম্প্রদায়কে, সিঙ্গুরে শিল্প হবে, বলছেন জোট প্রার্থী সৃজন

২০১১ সালে সিঙ্গুর ও নন্দীগ্রামের আন্দোলনকে হাতিয়ার করে ৩৪ বছরের বাম দুর্গের পতন ঘটিয়েছিলেন মমতা ব্যানার্জি

সিঙ্গুরে এবার বাম জোটের প্রার্থী সৃজন ভট্টাচার্য। শনিবার সিঙ্গুরে ভোট প্রচারে গিয়ে সৃজন বললেন, সিঙ্গুরের মাটিতে শিল্প হবে। তরুণদের জন্য কাজের সুযোগ তৈরী হবে। তাঁর দাবি বামেরা ক্ষমতায় ফিরলে, কোনও বেকার যুবককে মনখারাপ করে রাতে ঘুমোতে যেতে হবে না।
১০ এপ্রিল সিঙ্গুরে ভোট। তৃণমূল সিঙ্গুর থেকে প্রার্থী করেছে ভূমি আন্দোলনের অন্যতম নেতা বেচারাম মান্নাকে। সিপিএম প্রার্থী করেছে এসএফআই-এর রাজ্য সম্পাদক সৃজন ভট্টাচার্যকে। ২১ এর নির্বাচনে সবথেকে আকর্ষণীয় কেন্দ্র নন্দীগ্রামে হলেও রাজ্যবাসীর চোখ রয়েছে সিঙ্গুরের দিকেও। ২০১১ সালে সিঙ্গুর ও নন্দীগ্রামের আন্দোলনকে হাতিয়ার করে ৩৪ বছরের বাম দুর্গের পতন ঘটিয়েছিলেন মমতা ব্যানার্জি। নন্দীগ্রামে জমি অধিগ্রহণ না হলেও সিঙ্গুরে কিন্তু অনেকটাই এগিয়ে গিয়েছিল টাটার ন্যানো ফ্যাক্টরি।
যে সিঙ্গুরে কারখানা করতে গিয়ে বামেদের ক্ষমতাচ্যুত হতে হল বলে মনে করেন অনেকে, রাজ্যবাসীর নজর ছিল সেই সিঙ্গুরের মাটিতে দাঁড়িয়ে সিপিএম প্রার্থী কী বার্তা দেন।

[আরও পড়ুন- খড়গপুর সদরে দিলীপ ঘোষকে পাশে নিয়ে প্রচারে হিরণ, মন্দির প্রদর্শন, দেখুন ফটো গ্যালারি]

এবারে সিপিএম প্রার্থীর তালিকায় একঝাঁক তরুণ মুখ। তাঁদের মধ্যে অন্যতম সৃজন ভট্টাচর্য। ইতিমধ্যেই তিনি প্রচারে সিঙ্গুরের মাটি চষে বেড়াচ্ছেন। ১০ এপ্রিল ভোট রাজ্যের এই চর্চিত কেন্দ্রে। লোকসভা ভোটে সিঙ্গুরে এগিয়ে ছিল বিজেপি। মাঝে একাধিক রাজনৈতিক পালাবদল ঘটেছে। ভূমি আন্দোলনের অন্যতম নেতা সিঙ্গুরের মাস্টারমশাই রবীন্দ্রনাথ ভট্রাচার্য কয়েকদিন আগে বিজেপিতে যোগ দিয়েছেন। এদিকে তৃণমূলের পুরনো সৈনিক বেচারাম মান্নার উপর ভরসা রেখেছেন সিঙ্গুর জয়ের জন্য। সবমিলিয়ে, সিপিএমের তরুণ প্রার্থীর সিঙ্গুরে দাঁড়িয়ে পুনরায় কারখানা করার প্রতিশ্রুতি বামেদের ভোট বাক্সে কতটা প্রভাব ফেলে সেটা দেখার জন্য অপেক্ষা ২ মে পর্যন্ত।

Comments
Loading...