দিশা রবি মামলায় কেন্দ্রকে কটাক্ষ মহুয়ার, যোগীর নাম করে আক্রমণ তৃণমূল সাংসদের

দিশার জামিন খারিজ করল আদালত

দিশা রবি মামলায় এবার ট্যুইটে সরব হলেন তৃণমূল সাংসদ মহুয়া মৈত্র। তীব্র কটাক্ষে বিঁধলেন বিজেপি সরকারকে। টেনে আনলেন উত্তরপ্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী যোগী আদিত্যনাথের নাম।
শনিবার তিনি ট্যুইটে লেখেন, যদি দিশা রবি আন্তর্জাতিক ষড়যন্ত্রের অংশ হিসেবে ভারতের সম্মানহানি করে থাকেন, তাহলে যোগী আদিত্যনাথ অবশ্যই বিজেপির ভারতের সম্মানহানির যড়যন্ত্রের অংশ।

দিল্লির কৃষক আন্দোলন নিয়ে সরব হয়েছিলেন মার্কিন পপ তারকা রিহানা, পরিবেশ কর্মী গ্রেটা থুনবার্গ। আন্তর্জাতিক তারকাদের এই ট্যুইট-এর কড়া সমালোচনার পাশাপাশি দিল্লি পুলিশ গ্রেটার বিরুদ্ধে মামলাও করে। ১৩ ফেব্র্রুয়ারি গ্রেটা থুনবার্গ যে টুলকিট ব্যবহার করেছিলেন সেই টুলকিট এডিটিং ও শেয়ারের অভিযোগে বেঙ্গালুরু থেকে ২২ বছরের দিশা রবিকে গ্রেফতার করে দিল্লি পুলিশের সাইবার সেল শাখা।
এদিন ছিল দিশার জামিনের শুনানি। আদালত দিশা রবি মামলার রায় রিজার্ভ রেখেছে। ২৩ ফেব্রুয়ারি রায় হবে।

[আরও পড়ুন- রামচন্দ্র ডোম, ফুয়াদ, অমিয় পাত্র, কান্তি, আভাস প্রার্থী! দ্বিধাগ্রস্থ সিপিএম, লড়লে কোন আসনে?]

এদিন দিল্লি পুলিশ আদালতে জানায় দিশা একটি আন্তর্জাতিক চক্রের সঙ্গে ভারতের ভাবমূর্তি নষ্ট করার ষড়যন্ত্রে জড়িত। পাশাপাশি পুলিশ কোর্টে জানায়, তদন্ত দেখা গিয়েছে দিশা যে টুলকিট সম্পাদনা করেছেন তা খালিস্থানপন্থীরাও ব্যবহার করতেন। প্রজাতন্ত্র দিবসের দিন হিংসা ছড়ানোর কাজে ওই টুলকিট ব্যবহার করা হয়। দিল্লি পুলিশের তরফে আদালতে আরও দাবি করা হয়, তদন্ত শুরু হওয়ার পরে দিশা তাঁর ফোনের একাধিক হোয়াটসঅ্যাপ চ্যাটও ডিলিট করেছেন।

এই পরিস্থিতির মধ্যেই দিল্লি পুলিশের আদালতে করা দাবিকে কটাক্ষ করে কৃষ্ণনগরের তৃণমূল সাংসদ মহুয়া মিত্র বিঁধেছেন ক্ষমতাসীন বিজেপি সরকারকে।

Comments
Loading...