যত বড়ই হোক, শাস্তি হবেই, শীতলকুচিতে ভেদাভেদ মুছলেন মমতা

শীতলকুচি কাণ্ডে নিহতদের পরিজনেদের সঙ্গে দেখা করলেন মমতা ব্যানার্জি। বুধবার মাথাভাঙ্গায় গিয়ে হাসপাতালের পাশের মাঠে অস্থায়ী মঞ্চে কথা বলেন নিহত ও আহতদের পরিবারের সঙ্গে। নিহত নিহত মনিরুল হকের সন্তানকে কোলেও তুলে নিলেন। দিলেন আজীবন পাশে থাকার আশ্বাস। সদ্য পরিজনদের হারিয়ে মুখ্যমন্ত্রীর সঙ্গে সাক্ষতে খানিক স্বস্তি পেল শীতলকুচির নিহতদের পরিবারবর্গ।

প্রথমবার ভোট দিতে গিয়েছিলেন শীতলকুচির আনন্দ বর্মণ। গুলিবিদ্ধ হয়ে মৃত্যু হয় তাঁর। বিজেপি সমর্থক পরিবার প্রথমে মুখ্যমন্ত্রীর সঙ্গে দেখা করতে চায়নি। কিন্তু বুধবার সকালে মমতার পাঁশেই দেখা যায় আনন্দর বাবা ও দাদুকে।

শীতলখুচিতে মমতা বলেন,‘‘আমি আপনাদের সকলের ঘরের লোক। তিনি বলেন, আমাকে ঘরের লোক বলেই মনে করুন। দোষীরা শাস্তি পাবেই। মানুষ এই হত্যার জবাব দেবেন।

এদিন তিনি আরও বলেন, আমি পরের দিনই আসতে চেয়েছিলাম। কিন্তু আমাকে আসতে দেওয়া হয়নি। ভোট মিটলে ফের শীতলকুচিতে আসার প্রতিশ্রুতি দিয়ে মমতা বলেন, প্রতিটি পরিবার ন্যায্য বিচার পাবেন, এটা আমি আপনাদের কথা দিয়ে গেলাম।

Comments
Loading...