রাজীব কুমারের বিরুদ্ধে জমা পড়া রিপোর্টের সমর্থনে প্রমাণ জমা দিতে সিবিআইকে নির্দেশ দিল সুপ্রিম কোর্ট

সারদা চিট ফান্ড মামলায় কলকাতার প্রাক্তন পুলিশ কমিশনার রাজীব কুমারের বিরুদ্ধে সিবিআইয়ের পেশ করা রিপোর্টকে ‘বিশেষ গুরুত্বপূর্ণ’ বলে মন্তব্য করল সুপ্রিম কোর্ট। পাশাপাশি এই রিপোর্টের সমর্থনে কী প্রমাণ রয়েছে তা সিবিআইকে ১০ দিনের মধ্যে জমা করতে বলল দেশের সর্বোচ্চ আদালত।
কলকাতার প্রাক্তন পুলিশ কমিশনার রাজীব কুমারের বিরুদ্ধে সিবিআইয়ের দায়ের করা আদালত অবমাননা মামলায় মঙ্গলবার শীর্ষ আদালতে মুখবন্ধ খামে একটি রিপোর্ট জমা দেন দেশের অ্যাটর্নি জেনারেল। সিবিআইয়ের তরফে শীর্ষ আদালতে এদিন দাবি করা হয়, খালি সিডি ও বিকৃত রেকর্ড তাদের হাতে তুলে দিয়েছিল রাজ্য সরকার। সম্প্রতি শিলংয়ে রাজীব কুমারকে জিজ্ঞাসাবাদ করেছিলেন সিবিআই অফিসাররা। মুখবন্ধ রিপোর্টে সে সম্পর্কেও উল্লেখ রয়েছে বলে জানা গিয়েছে। ওই রিপোর্ট খতিয়ে দেখেন প্রধান বিচারপতি রঞ্জন গগৈর নেতৃত্বাধীন ডিভিশন বেঞ্চ। সূত্রের খবর, ওই রিপোর্ট দেখার পর তাকে ‘বিশেষ গুরুত্বপূর্ণ’ বলে মন্তব্য করেন সুপ্রিম কোর্টের প্রধান বিচারপতি। তবে অন্য পক্ষের বক্তব্য না শুনে রায়দান সম্ভব নয় বলেও জানান প্রধান বিচারপতি। এদিনের জমা দেওয়া রিপোর্টের সমর্থনে কী প্রমাণ আছে তার বিস্তারিত রিপোর্ট সুপ্রিম কোর্ট আগামী ১০ দিনের মধ্যে সিবিআইকে জমা দেওয়ার নির্দেশ দেয়। সেই রিপোর্টের উত্তর দিতে হবে রাজীব কুমারকে।
প্রসঙ্গত, সারদা চিটফান্ড মামলায় রাজ্যের তরফে যখন বিশেষ তদন্তকারী দল (সিট) গঠন করা হয়, সেই দলে ছিলেন কলকাতার প্রাক্তন পুলিশ কমিশনার। সিবিআইয়ের অভিযোগ ছিল, সারদা চিট ফান্ড তদন্তে তাদের অসহযোগিতা করেন রাজীব কুমার। তাঁর বিরুদ্ধে তথ্য বিকৃতির অভিযোগ তোলা হয়েছিল। সিবিআইকে কল রেকর্ডের তালিকা দেননি বলেও শীর্ষ আদালতে দাবি করেছিল সিবিআই। গত শুনানিতে এই বিষয়ে লিখিত অভিযোগ জমা দেওয়ার নির্দেশ দিয়েছিল সুপ্রিম কোর্ট।

Comments
Loading...