WB Election 2021: লজ্জা করে না মুখ্যমন্ত্রীর ফোন ট্যাপ করতে? মোদীকে ক্ষমা চাওয়ার দাবি Mamata’র

আমার ফোন ট্যাপ হওয়া মানে আপনাদের সবার কথা শুনছে! CID তদন্ত করাব

আমার ফোন ট্যাপ করছে বিজেপি। সিআইডি তদন্তের নির্দেশ দেব। এটা বড় দুর্নীতি। গলসীর সভা থেকে হুঁশিয়ারি তৃণমূল নেত্রী মমতা ব্যানার্জির। বুধবার পূর্ব বর্ধমানে তিনটি জনসভা করার কথা মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জির। প্রথম জনসভা গলসিতে। তিনি বলেন, আমি কার সঙ্গে কথা বলছি। সব ট্যাপ করা হচ্ছে। এসব বিজেপির কাজ। কে কে এই খেলায় আছে, আমি খুঁজে বের করবই। সিআইডি তদন্তের নির্দেশ দেব।

সাধারণ মানুষের উদ্দেশ্যে সাবধান বাণী দিয়ে তৃণমূল নেত্রী বলেন, আমার ফোন যদি ট্যাপ হয়, মনে রাখবেন আপনাদের ফোনও ট্যাপ হতে পারে। উন্নয়নের কথা বলতে পারছে না। শুধু এইসব করাচ্ছে।

মমতা ব্যানার্জির অভিযোগ, আমি কোনও ভুল কথা বলিনি। বলেছিলাম মৃতদেহ রেখে দাও। কেন তিনি একথা বলেছিলেন তারও ব্যাখ্যা দেন মমতা। বলেন, আমি কী করে যাবো সেদিন? আমি ওই কেন্দ্রের ভোটার না তাই ভোটের দিন সেখানে যেতে পারব না। তাই বলেছিলাম মৃতদেহ রেখে দাও।

মমতার প্রশ্ন, একজন মুখ্যমন্ত্রীর ফোন ট্যাপ হয়ে যাচ্ছে! প্রধানমন্ত্রী বলুন আপনি ট্যাপ করিয়েছেন কিনা। আপনি না করলে কে করল মুখ্যমন্ত্রীর ফোন ট্যাপ? মমতার দাবি, ফোন ট্যাপিংয়ের দায় নিয়ে প্রধানমন্ত্রীর পদত্যাগ করুন মোদী। মমতা ব্যানার্জির হুঁশিয়ারি, তদন্তের আওতায় আপনি আসবেন মিস্টার মোদী। কাউকে ছাড়ব না। অন্যায় করলে ফল ভুগতেই হবে। মমতার অভিযোগ, প্রধানমন্ত্রী আপনি আমার ফোন ট্যাপ করেছেন? আপনার লজ্জা করে না একজন মুখ্যমন্ত্রীর ফোন ট্যাপ করতে? আপনি যদি না করেন তাহলে ফোনের সত্যতা স্বীকার করলেন কীভাবে?

শুক্রবার বিজেপির আইটি সেলের প্রধান অমিত মালব্য একটি অডিও ক্লিপ প্রকাশ্যে আনেন। সেখানে শোনা যাচ্ছে, চতুর্থ দফার ভোটে শীতলখুচির ঘটনা নিয়ে আলোচনা চলছে। সেখানে একজন মহিলা কণ্ঠস্বর শোনা যায়। বিজেপির দাবি, ওই মহিলা কণ্ঠস্বর মমতা ব্যানার্জির আর ফোনের আরেক প্রান্তের পুরুষ কণ্ঠস্বরটি শীতলখুচি কেন্দ্রের তৃণমূল প্রার্থী পার্থপ্রতিম রায়। ওই অডিও ক্লিপের সত্যতা যাচাই করেনি The Bengal Story. এরপরেই তৃণমূলের পক্ষ থেকে মুখ্যমন্ত্রীর ফোনেও আড়ি পাতা হচ্ছে বলে অভিযোগ করা হয়।

এদিন গলসীর সভা থেকে মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জি নির্বাচন কমিশনের ভোটের প্রচারে সময় কমিয়ে দেওয়া নিয়ে তীব্র প্রতিবাদ জানান। তিনি বলেন, নরেন্দ্র মোদী, অমিত শাহের মিটিং ছিল না বলে ওই সময় প্রচারে নিষেধাজ্ঞা জারি করেছে। বিজেপির কথা শুনে চলছে কমিশন। আমি বারবার বললাম তাও ৪ টে ফেজকে একদিনে করা হল না। আর প্রচারে সময় নষ্ট করে দেওয়া হল, অভিযোগ মমতার।

Comments
Loading...