বৃষ্টি দিয়ে সূচনা দেবীপক্ষের, সোমবার পর্যন্ত রাজ্যে বৃষ্টির পূর্বাভাস হাওয়া অফিসের

দেবীপক্ষের শুরু বৃষ্টি দিয়ে। পুজোর সময় বৃষ্টির আশঙ্কা দিয়ে শুরু হল মহালয়ার ভোর। দেবীপক্ষের সূচনার দিনে শরতের নীল আকাশের দেখা মেলেনি। আবহাওয়া দফতর বলছে, শনিবার তো বটেই, রবিবারও বজ্রবিদ্যুৎ-সহ হালকা থেকে মাঝারি বৃষ্টি হতে পারে কলকাতা সহ দক্ষিণবঙ্গের জেলাগুলিতে। সোমবার কাটতে পারে দুর্যোগ। পুজোর আগে শেষ রবিবারে কেনাকাটায় বাধ সাধছে নিম্নচাপ। দেবীর চক্ষুদান পর্বে গভীর নিম্নচাপে অসুবিধায় পড়েছেন শিল্পীরা। মূর্তি শুকানোর কাজে বাদ সাধছে তামিলনাড়ু উপকূলে সৃষ্ট নিম্নচাপ। বাধার মুখে দাঁড়িয়ে মণ্ডপ তৈরির কারিগররা। শনিবার সকাল থেকেই কলকাতার আকাশের মুখভার। জায়গায় জায়গায় হালকা থেকে মাঝারি বিক্ষিপ্ত বৃষ্টি হচ্ছে। দুই মেদিনীপুর, উত্তর ও দক্ষিণ ২৪ পরগনা, মালদা, মুর্শিদাবাদেও হালকা থেকে মাঝারি বৃষ্টিপাত চলছে। আবহাওয়া দফতর বলছে রবিবারের আগে দক্ষিণবঙ্গের জেলাগুলিতে এই দুর্যোগ কাটার সম্ভাবনা কম। অন্যদিকে উত্তরবঙ্গের জেলাগুলিতে আরও দু’দিন স্থায়ী হতে পারে  বৃষ্টি। এমনিতে মহালয়া থেকেই কলকাতা সহ জেলার বিখ্যাত পুজো মণ্ডপগুলো দর্শনার্থীদের জন্য খুলে দেওয়া হয়। কিন্তু দিনভর মেঘলা আকাশ আর বিক্ষিপ্ত বৃষ্টিতে অনেক উদ্যোক্তা জানাচ্ছেন, মন্ডপ সজ্জাই শেষ করা যায়নি। বৃষ্টির জেরে পুজোর কয়েকটা দিনের আনন্দও কি মাটি হবে? সে বিষয়ে চূড়ান্ত কোনও পূর্বাভাস না দিলেও, অধিকাংশ আবহাওয়াবিদই বলছেন, পুজোর সময় কাটফাটা রোদের সম্ভাবনা নেই বললেই চলে। মেঘলা আকাশ আর বিক্ষিপ্ত বৃষ্টিতে পণ্ড হতে যাচ্ছে কি পুজোর আনন্দ, এখন এই প্রশ্নেরই উত্তর খুঁজছে বাঙালি।

Comments
Loading...