৭ মার্চ ব্রিগেডে মোদী, সভা ঘিরে প্রস্তুতি তুঙ্গে রাজ্য বিজেপির  

বিগ্রেড ময়দান ভরাতে কোনোরকম খামতি রাখতে নারাজ গেরুয়া শিবির

৭ মার্চ ব্রিগেডে জনসভা করবেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। সভা ঘিরে বিজেপির প্রস্তুতি তুঙ্গে। রাজ্য বিজেপি নেতৃত্বের তরফে দাবি, মোদীর ব্রিগেডে ঐতিহাসিক জনসমাগমের সাক্ষী থাকবে বাংলা। বিগ্রেড ময়দান ভরাতে কোনোরকম খামতি রাখতে নারাজ গেরুয়া শিবির। স্ট্রিট কর্নার, মিটিং মিছিলের পাশাপাশি সোশ্যাল মিডিয়ায় বিগ্রেডে আসার আবেদন জানাচ্ছেন রাজ্য বিজেপির একাধিক নেতৃত্ব। ইতিমধ্যেই বিজেপির ফেসবুক পেজে ভিডিও বার্তার  মাধ্যমে পশ্চিবঙ্গবাসীকে ব্রিগেডে আসার আবেদন করেছেন বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ, সাংসদ সৌমিত্র খাঁ, অর্জুন সিং, সুভাষ সরকার প্রমুখ। খবর, মোদীর সভায় উপস্থিত থাকতে পারেন বাংলার বিধানসভা ভোটের প্রথম দু’দফার প্রার্থীরা। 

বাংলা দখলের লড়াইয়ে সর্বশক্তি দিয়ে ঝাঁপিয়েছে গেরুয়া শিবির। বিজেপির শীর্ষ নেতৃত্বরা বাংলায় আসছেন ঘনঘন। মোদী, অমিত শাহদের একাধিক জনসভা করার কথা বাংলায়। তবে ব্রিগেডে জনসভা সব দলের ক্ষেত্রেই আলাদাভাবে গুরুত্বপূর্ণ। ইতিমধ্যেই সভাস্থলে গিয়ে প্রস্তুতি দেখে এসেছেন বিজেপির সর্বভারতীয় সহ সভাপতি মুকুল রায়, স্বপন দাসগুপ্ত সহ অন্যান্য নেতৃত্ব। মুকুল রায় জানান, সারা বাংলা থেকে লোক আসবেন প্রধানমন্ত্রীর সভায়। সেইমত সমস্ত ব্যবস্থা রাখা হচ্ছে। মার্চের শুরুতেই মাত্রাতিরিক্ত  গরম পড়েছে। দূরদরান্ত থেকে আসা কর্মীরা গরমে যাতে অসুস্ত হয়ে না পড়েন সে দিকটাও নজর রাখছেন নেতৃত্ব। সেইমত সমস্ত ব্যবস্থা থাকবে বলে এদিন জানান উদ্যোক্তারা।  

[আরও পড়ুন- প্রার্থী হতে চাই না, প্রচার করব! ফেসবুক পোস্ট তৃণমূল বিধায়ক সমীর চক্রবর্তীর]

এদিকে ২৮ ফেব্র্রুয়ারি বাম-কংগ্রেস-আইএসএফ জোট সভা করেছিল ব্রিগেডে। ওই সমাবেশে কার্যত বিপুল জনসমাগমের সাক্ষী ছিল কলকাতা। সবমিলিয়ে, ভোটমুখী বাংলায় মোদীর ব্রিগেডে জনসভার কতটা ডিভিডেন্ট তুলতে পারে রাজ্য বিজেপি, তা জানার জন্য অপেক্ষা ২ মে পর্যন্ত।                                                    

Comments
Loading...