ফের নন্দীগ্রামের সিপিএম প্রার্থী মীনাক্ষীর প্রচারে হামলা, অভিযুক্ত তৃণমূল

সিপিএম নেতৃত্বের দাবি, হামলার ঘটনায় তাঁদের একজন শিক্ষক সমিতির নেতা আহত হয়েছেন

মঙ্গলবার নন্দীগ্রামে প্রচারে বেরিয়ে ফের আক্রান্ত সিপিএম প্রার্থী মীনাক্ষী মুখার্জি। মঙ্গলবার মীনাক্ষী মুখার্জির সমর্থনে রোড-শো করেন বামফ্রন্ট চেয়ারম্যান বিমান বসু, সিপিএম নেতা রবিন দেব প্রমুখ।
সিপিএম প্রার্থীর অভিযোগ, গড়চক্রবেড়িয়া থেকে ভুতারমোড় যাওয়ার পথে মিছিলের উপর হামলা চালায় তৃণমূলের দুষ্কৃতীরা। সিপিএম নেতৃত্বের দাবি, হামলার ঘটনায় তাঁদের একজন শিক্ষক সমিতির নেতা আহত হয়েছেন।
এর আগেও প্রচারে বেরিয়ে তৃণমূলের বিক্ষোভের মুখে পড়েন সিপিএম প্রার্থী। তৃণমূলের এক গ্রাম পঞ্চায়েত সদস্য মীনাক্ষীকে প্রচারের কাজে বাধা দেন বলে অভিযোগ। এই ঘটনার জেরে সিপিএম প্রার্থী দলের কর্মী সমর্থকদের নিয়ে নন্দীগ্রাম থানার সামনে বিক্ষোভ করেছিলেন। পরে অভিযুক্তকে গ্রেফতার করা হয়। মীনাক্ষী প্রতিটি সভা থেকে অভিযোগ করছেন, তাঁদের কর্মী সমর্থকদের রাতের অন্ধকারে ভয় দেখাচ্ছে তৃণমূলের দুষ্কৃতিরা। ব্যানার, ফেস্টুন ছিঁড়ে দেওয়া হচ্ছে বলেও সরব হয়েছেন সিপিএম নেত্রী।

[আরও পড়ুন- মুকুল-কৌশানি দ্বৈরথে উজ্জ্বল তরুণ মুখ সিলভী, কংগ্রেস প্রার্থী বলছেন কৃষ্ণনগর নিজের মেয়েকেই চায়!]

১ এপ্রিল একুশের নির্বাচনের সব থেকে আকর্ষণীয় কেন্দ্র নন্দীগ্রামে ভোট। মঙ্গলবারই ছিল প্রচারের শেষদিন। বিজেপি প্রার্থী শুভেন্দু অধিকারীর সমর্থনে রোড-শো করেন অমিত শাহ। শাহের অনুষ্ঠান শেষে বিকেলে শুভেন্দুর হয়ে নন্দীগ্রামে প্রচার সারেন অভিনেতা মিঠুন চক্রবর্তী। শেষদিনে প্রচারে ঝড় তুলেছেন তৃণমূল নেত্রী মমতা ব্যানার্জি। অন্যদিকে মীনাক্ষীর সমর্থনে বিমান বসু, রবিন দেবরা রোড-শো করেন। চৈত্রের দাবদাহকেও ছাড়িয়ে গিয়েছে নন্দীগ্রামের ভোট উত্তাপ। এর মধ্যে সিপিএম প্রার্থীর অভিযোগ ঘিরে ভোটের ঠিক আগে আরও উত্তপ্ত হয়ে উঠল নন্দীগ্রাম।

Comments
Loading...