জানেন, লন্ডনে সবচেয়ে বেশি মানুষ কোন বিদেশি ভাষায় কথা বলেন? ইংরেজির ধাত্রীভূমিতে এমন কোন ভাষা, যা মনের ভাব প্রকাশে হাজার হাজার মানুষ ব্যবহার করেন? উত্তরটা শুনলে অবাক হবেন। কারণ, সম্প্রতি লন্ডনে দ্বিতীয় ভাষার মর্যাদা পেল আ মরি বাংলা ভাষা। বাংলার পরে স্থান পোলিশ এবং টার্কিস ভাষার। লন্ডনে দেড় লক্ষেরও বেশি মানুষ এই ৩ টি ভাষায় মনের ভাব প্রকাশ করেন।
লন্ডনের জনপ্রিয় সাপ্তাহিক ট্যাবলয়েড এশিয়ান ভয়েসে গত ২ ডিসেম্বর প্রকাশিত হয়েছে এই খবর। ইংল্যান্ডে বসবাসকারী ব্রিটিশ এশিয়ানদের মধ্যে অত্যন্ত জনপ্রিয় এই ট্যাবলয়েড একইসঙ্গে প্রকাশ করে গুজরাত সমাচার নামে একটি ট্যাবলয়েডও।
এশিয়ান ভয়েসের প্রতিবেদনে প্রকাশ, লন্ডনে বসবাসকারী ৩ লক্ষ ১১ হাজার ২১০ জন মাতৃভাষা হিসেবে ইংরেজি ভিন্ন বিদেশি ভাষা ব্যবহার করেন। লন্ডনের বহুবিধ সাংস্কৃতিক বৈচিত্রকে তুলে ধরে লন্ডনবাসীর মধ্যে একে অপরকে চেনার সুযোগ করে দিতে সম্প্রতি উদ্যোগ নিয়েছে প্রশাসন। সেই অনুযায়ী গোটা লন্ডনে সমীক্ষা চালিয়ে দেখা হয়, এমন কোন বিদেশি ভাষা আছে যার মাধ্যমে সবচেয়ে বেশি মানুষ মনের ভাব প্রকাশ করেন। তাতে বাংলা সবচেয়ে উপরে।
বাংলা আনুষ্ঠানিকভাবে লন্ডনের দ্বিতীয় ভাষার মর্যাদা পেয়েছে। প্রায় ৭১ হাজার ৬০৯ জন লন্ডনবাসী ইংরেজির পাশাপাশি ঝরঝরে বাংলা ভাষায় কথা বলেন। লন্ডনের ক্যামডেন এলাকায় ৩ শতাংশ, নিউ হ্যামে ৭ শতাংশ এবং টাওয়ার হ্যামলেট এলাকায় ১৮ শতাংশ মানুষের মাতৃভাষা বাংলা। এরপরই আছে পোলিশ। তারপর টার্কিস ভাষা।

ধারাবাহিকভাবে পাশে থাকার জন্য The Bengal Story র পাঠকদের ধন্যবাদ। আমরা শুরু করেছি সাবস্ক্রিপশন অফার। নিয়মিত আমাদের সমস্ত খবর এসএমএস এবং ই-মেইল এর মাধ্যমে পাওয়ার জন্য দয়া করে সাবস্ক্রাইব করুন। আমরা যে ধরনের খবর করি, তা আরও ভালোভাবে করতে আপনাদের সাহায্য আমাদের উৎসাহিত করবে।

Login Subscribe