অনিচ্ছাকৃত খুনের অভিযোগে আরসালান রেস্তরাঁর মালিকের ছেলে রাঘিবের বিরুদ্ধে চার্জশিট দিল পুলিশ

শেকসপিয়র সরণিতে বেপরোয়া গতিতে জাগুয়ার চালিয়ে ২ বাংলাদেশিকে পিষ্ট করার ঘটনায় আরসালান রেস্তরাঁর মালিকের ছেলে রাঘিব পারভেজের বিরুদ্ধে চার্জশিট জমা দিল পুলিশ। আরসালান রেস্তরাঁ চেনের মালিক পুত্র রাঘিবের বিরুদ্ধে ভারতীয় দণ্ডবিধির ৩০৪ ধারায় অনিচ্ছাকৃত খুনের মামলা সহ একাধিক ধারায় চার্জশিট দেওয়া হয়েছে। পাশাপাশি, পিডিপিপি আইনের ৩ ধারায় এবং মোটর ভেহিকেল আইনের ১১৯ ও ১৭৭ ধারায় চার্জশিট দেওয়া হয়েছে রাঘিবের বিরুদ্ধে।
গত ১৬ অগাস্টের দুর্ঘটনার পর যে মামা তাঁকে দুবাই পালাতে সাহায্য করেছিলেন, সেই মহম্মদ হামজার বিরুদ্ধে অসত্য বলা ও অপরাধীকে পালাতে সাহায্য করার জন্য ভারতীয় দণ্ডবিধির ২০১ ও ২১২ ধারায় মামলা করা হয়েছে।
গত ১৬ ই অগাস্ট মধ্যরাতে শেকসপিয়র সরণিতে একটি জাগুয়ার গাড়ি বেপরোয়া গতিতে প্রথমে একটি মার্সিডিজকে ধাক্কা মারে। সেই মার্সিডিজটি পুলিশ কিয়স্কের ছাউনিতে দাঁড়িয়ে থাকা ৩ জনকে ধাক্কা মারে। যার মধ্যে ২ বাংলাদেশি পর্যটকের মৃত্যু হয়। প্রথমে ওই জাগুয়ারটি আরসালান রেস্তরাঁ চেনের মালিকের ছেলে পারভেজ আরসালানকে গ্রেফতার করে পুলিশ। কিন্তু পরে এই ঘটনার তদন্তভার নেয় কলকাতা পুলিশের গোয়েন্দা দফতর। এরপরে অন্য দিকে মোড় নেয় এই মামলা। গোয়েন্দা রিপোর্টে বলা হয়,দুর্ঘটনাগ্রস্ত জাগুয়ারের স্টিয়ারিং সেদিন আরসালানের হাতে নয়, গাড়িটি চালাচ্ছিলেন তাঁর দাদা রাঘিব পারভেজ। তদন্তে উঠে আসে দুর্ঘটনার পর রাঘিবকে দুবাই পালাতে সাহায্য করেছিলেন তাঁর মামা মহম্মদ হামজা। পরে দুবাই থেকে ফিরলে রাঘিবকে গ্রেফতার করা হয়। সেই সঙ্গে আরসালান পারভেজকে জামিনে মুক্তি দেওয়া হয়।

Comments
Loading...