প্রধানমন্ত্রীর বায়োপিক ‘পিএম নরেন্দ্র মোদী’র মুক্তি নিয়ে প্রতিক্রিয়া চেয়ে নির্বাচন কমিশনকে নোটিস দিল বম্বে হাইকোর্ট

প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর বায়োপিক ঘিরে ফের নয়া বিতর্ক। এবার রিপাবলিকান পার্টি অব ইন্ডিয়ার সভাপতি সতীশ সুগ্রীব গাইকড়ের দায়ের করা মামলার পরিপ্রেক্ষিতে ‘পিএম নরেন্দ্র মোদী’ সিনেমাটি নিয়ে নির্বাচন কমিশনের প্রতিক্রিয়া চেয়ে নোটিস দিল বম্বে হাইকোর্ট।
শুক্রবার বম্বে হাইকোর্টের প্রধান বিচারপতি এন এইচ পাতিল ও বিচারপতি এন এম জমদারের বেঞ্চে সতীশ সুগ্রীব গাইকোড়ের পক্ষের আইনজীবীরা সওয়াল করেন। মামলাকারী আইনজীবীদের দাবি, ভোটের ঠিক আগে ‘পিএম নরেন্দ্র মোদী’ সিনেমাটির মুক্তির দিন ধার্য করে নির্বাচনী বিধি ভাঙা হয়েছে। বিবেক ওবেরয় অভিনীত পিএম নরেন্দ্র মোদী সিনেমাটির মুক্তির দিন ধার্য হয়েছে আগামী ৫ ই এপ্রিল। সংশ্লিষ্ট জনস্বার্থ মামলায় অভিযোগ করা হয়েছে, লোকসভা নির্বাচনের ঠিক আগে বিশেষ উদ্দেশ্যে মুক্তি পাচ্ছে এই ছবি। নির্দিষ্ট রাজনৈতিক দল বা ব্যক্তির হয়ে ভোটারদের প্রভাবিত করাই সিনেমাটির উদ্দেশ্য। শুধু তাই নয়, এই জনস্বার্থ মামলায় তথ্য সংস্কৃতি বিভাগ, সিবিএফসি, মহারাষ্ট্র সরকার, নির্বাচন কমিশন, ছবির নির্মাতা ও প্রধানমন্ত্রীর ভূমিকায় অভিনয় করা বিবেক ওবেরয়ের ভূমিকা নিয়ে প্রশ্ন তোলা হয়েছে। ছবির ট্রেলার এবং বিজ্ঞাপন আপাতত সরিয়ে নেওয়ার জন্য আবেদন করা হয় ওই জনস্বার্থ মামলায়। আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে আগামী ১ লা এপ্রিলের মধ্যে নির্বাচন কমিশনের প্রতিক্রিয়া চেয়ে নোটিস পাঠিয়েছে বম্বে হাইকোর্ট।

Comments
Loading...