তিরুবনন্তপুরম বিমানবন্দর আদানিকে কেন, সুপ্রিম কোর্ট মামলা ফিরিয়ে দিল কেরল হাইকোর্টে

তিরুবনন্তপুরম বিমানবন্দর পরিচালনার ভার আদানি গোষ্ঠীর হাতে যাওয়ার বিরুদ্ধে কেরল সরকারের মামলা ফের হাইকোর্টের দিকে ঠেলে দিল সুপ্রিম কোর্ট। তিরুবনন্তপুরম বিমানবন্দর পরিচালনার ভার মোদী ঘনিষ্ঠ শিল্পপতি গৌতম আদানির সংস্থাকে দেওয়া নিয়ে এয়ারপোর্ট অথরিটি অফ ইন্ডিয়া (এএআই) ও কেন্দ্রকে চ্যালেঞ্জ জানিয়ে সুপ্রিম কোর্টে মামলা করেছিল কেরলের বাম সরকার। শুক্রবার প্রধান বিচারপতি এস এ বোবদের ডিভিশন বেঞ্চ সেই মামলা কেরল হাইকোর্টেই ফিরিয়ে দিয়েছে। প্রধান বিচারপতি বোবদে, বিচারপতি বি আর গাভই ও বিচারপতি সূর্য কান্তের ডিভিশন বেঞ্চ জানায়, সংবিধানের ১৩১ নম্বর অনুচ্ছেদ অনুযায়ী কেন্দ্র ও রাজ্যের মধ্যে বিতর্কের বিষয়টি প্রয়োজনে পরে গ্রহণ করা হবে। তার আগে এই মামলা কেরল হাইকোর্টেই শুনানি হবে।
৫০ বছরের জন্য আদানি গোষ্ঠীর হাতে তিরুবনন্তপুরম এয়ারপোর্ট পরিচালনার ভার দেওয়ার প্রেক্ষিতে প্রথমে কেরল হাইকোর্ট এবং পরে সুপ্রিম কোর্টে মামলা দায়ের করে পিনারাই বিজয়নের সরকার। কিন্তু কেরল হাইকোর্ট এই মামলা সুপ্রিম কোর্টে ঠেলে দিয়ে জানিয়ছিল, বিষয়টি কেন্দ্র ও রাজ্যের সংঘাতের বিষয়। তাই সংবিধানের ১৩১ নম্বর অনুচ্ছেদ অনুযায়ী সুপ্রিম কোর্টের এই মামলার নিষ্পত্তি হবে। কিন্তু শুক্রবার সেই মামলা আবার কেরল হাইকোর্টে পাঠিয়ে দিল শীর্ষ আদালত।
প্রসঙ্গত, মোদী সরকারের বিমানবন্দর বেসরকারিকরণের উদ্যোগের প্রেক্ষিতে তিরুবনন্তপুরম এয়ারপোর্ট সহ ছ’টি বিমানবন্দর পরিচালনার ভার পায় গুজরাতের শিল্পপতি গৌতম আদানির সংস্থা। এদিকে এই নিলাম প্রক্রিয়া অবৈধ বলে দাবি করে কেরল সরকার। ১৯৩২ সালে ত্রিভাঙ্কোরে প্রায় ২৫৮ একর জমির উপর তৈরি হয় তিরুবনন্তপুরম এয়ারপোর্ট। যে জমির উত্তরাধিকারী হল কেরল সরকার। রাজস্ব নথিতে সরকারি জমি হিসেবে উল্লেখ থাকা এই জায়গার উপর তৈরি বিমানবন্দর পরিচালনার ভার বেসরকারি সংস্থার হাতে তুলে দেওয়ার তীব্র বিরোধিতা করে আদালতের দ্বারস্থ হয় কেরল সরকার।

Comments
Loading...