তৃণমূলের আদলে এবার বঙ্গ বিজেপির ‘দাদাকে বলো’ কর্মসূচি, রাজ্যজুড়ে চায়ের কাপ হাতে জনসংযোগে নামছেন দিলীপ ঘোষ

মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের ‘দিদিকে বলো’র কর্মসূচির পাল্টা ক্যাম্পেন আনছে রাজ্য বিজেপি। নরেন্দ্র মোদীর ‘চায়ে পে চর্চা’ কর্মসূচির আদলে বঙ্গ বিজেপি শুরু করছে ‘দাদাকে বলো’ ক্যাম্পেন। যেখানে এলাকায় ঘুরে-ঘুরে মানুষের সঙ্গে চা খাবেন রাজ্য বিজেপি সভাপতি দিলীপ ঘোষ। সাধারণ মানুষের বক্তব্য শুনবেন।
কাটমানি থেকে দুর্নীতি, এলাকার বিভিন্ন অভাব, অভিযোগ বা পরামর্শ যাতে সাধারণ মানুষ সরাসরি মুখ্যমন্ত্রীকে জানাতে পারেন, তার জন্য কিছুদিন আগেই ‘দিদিকে বলো’ কর্মসূচি শুরু করেছে তৃণমূল। এই ক্যাম্পেন শুরু থেকেই বিপুল জনপ্রিয়তা পেয়েছে। সমস্যার কথা জানিয়ে ‘দিদিকে বলো’র টোল ফ্রি নম্বর ৯১৩৭০৯১৩৭০ নম্বরে ফোন আসছে প্রচুর। সেই সঙ্গে ফেসবুক পেজ এবং ট্যুইটার অ্যাকাউন্টেও ব্যাপক সাড়া মিলছে। এবার রাজ্যের শাসক দলকে টেক্কা দিতে তাদের ক্যাম্পেনের অনুকরণেই রাজ্য বিজেপি শুরু করছে ‘দাদাকে বলো’ ক্যাম্পেন। আগামী সেপ্টেম্বর মাস থেকে শুরু হওয়া ক্যাম্পেনে মানুষের অভাব, অভিযোগ শুনতে তাদের এলাকায় উপস্থিত হবেন বিজেপির রাজ্য সভাপতি তথা সাংসদ দিলীপ ঘোষ।
তৃণমূলের ‘দিদিকে বলো’ ক্যাম্পেনের মতো অবশ্য বিজেপির ‘দাদাকে বলো’ ক্যাম্পেনে কোনও টোল ফ্রি নম্বর নেই। এই কর্মসূচির লক্ষ্য সরাসরি সাধারণ মানুষের সঙ্গে সংযোগ স্থাপন করা। এই লক্ষ্যে আগামী মাস থেকেই রাজ্যের বিভিন্ন এলাকা চষে বেড়াবেন দিলীপ ঘোষ। অনেকটা নরেন্দ্র মোদীর ‘চায়ে পে চর্চা’র আদলে এই ক্যাম্পেনে দিলীপ ঘোষকে দেখা যাবে সাধারণ মানুষের সঙ্গে আড্ডার মেজাজে। আড্ডা দিতে দিতেই শুনে নেবেন তাঁদের সুবিধা-অসুবিধা, ভালো-মন্দের খবরা-খবর।
‘দিদিকে বলো’ ক্যাম্পেনের ব্যাপক সাড়া মেলা, সেই সঙ্গে তৃণমূল নেত্রী নতুন করে যেভাবে রাজ্যের বিভিন্ন জেলা সফরে গিয়ে মানুষের সঙ্গে সংযোগ তৈরি করছেন, তাতে হয়তো চিন্তায় পড়েছে লোকসভা নির্বাচনে ৪২ এর ১৮ আসন দখল করা বিজেপি। সামনেই পুরসভা ভোট। শাসক দলকে টক্কর দিতে দুর্গাপুজোর কমিটি থেকে নতুন কর্মসূচি গ্রহণ, সবেতেই কোমর বেঁধে নামছেন বঙ্গ বিজেপি নেতৃত্ব।

Comments
Loading...