ভুয়ো সংস্থায় জিডিপির উত্থান, হদিশ নেই এক তৃতীয়াংশ কর্পোরেটেরই! এনএসএসও-র রিপোর্টে চাঞ্চল্যকর তথ্য

আর্থিক বৃদ্ধির হারে বিশ্বে অন্যতম স্থান দখল করেছে ভারত, আর এই সাফল্যের পেছনে মোদী সরকার ক্ষমতায় আসার পর জিডিপি পরিমাপের যে পদ্ধতি বদল করেছে তাকেই অন্যতম কারণ বলে দাবি করে তারা। কিন্তু মোদী সরকারের আমলে জিডিপি পরিমাপের পদ্ধতি নিয়েই এবার প্রশ্ন তুলে দিল খোদ কেন্দ্রীয় সরকারের সংস্থা ন্যাশনাল স্যাম্পেল সার্ভে অর্গানাইজেশন বা এনএসএসও।
কেন্দ্রীয় সংস্থাটির সাম্প্রতিক সমীক্ষা বলছে, কোম্পানি বিষয়ক মন্ত্রকের তালিকাভুক্ত যে কর্পোরেট সংস্থাগুলি থেকে তথ্য নিয়ে জিডিপির হিসেব কষা হয়েছিল, তার এক তৃতীয়াংশের কোনও হদিশই নেই। বৃহস্পতিবার ইংরেজি নিউজ পোর্টাল, ‘Livemint’এর একটি প্রতিবেদনে প্রকাশ, কোম্পানি বিষয়ক মন্ত্রকের এমসিএ-২১ ডেটাবেসের ৩৮ শতাংশ সংস্থার সন্ধান মেলেনি।
তাদের আমলেই আর্থিক বৃদ্ধির হারে ভারত বিশ্বসেরা হয়েছে, মোদী সরকার ঢাক ঢোল পিটিয়ে যে দাবি করছে, সেই জিডিপির হিসেবেই কি তবে গোলমাল রয়েছে? ভুয়ো সংস্থার তথ্যের ভিত্তিতে দেশের জিডিপির হার গণনা করা হয়েছে? উঠছে প্রশ্ন।
ন্যাশনাল স্যাম্পেল সার্ভে অর্গানাইজেশনের তথ্যের ভিত্তিতে ইতিমধ্যেই মোদী সরকারের তীব্র সমালোচনা করেছে বিরোধীরা। প্রাক্তন কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী পি চিদম্বরম ট্যুইটারে মোদী সরকারের কটাক্ষ করে লেখেন, এই সরকার যে ভুয়ো তথ্য ব্যবহার করে তা এনএসএসও দেখিয়ে দিয়েছে।
বিজেপি সরকারের আমলে কেন্দ্রীয় সংস্থার একাধিক রিপোর্টে তথ্য বিকৃতি বা আসল রিপোর্টই চেপে যাওয়ার অভিযোগ উঠেছে। কিছুদিন আগে, এই এনএসএসও-এর বেকারত্ব সংক্রান্ত রিপোর্ট জোর করে প্রকাশ করতে দেওয়া হয়নি বলে অভিযোগ ওঠে। সর্বভারতীয় ইংরেজি দৈনিক ‘দ্য বিজনেস স্ট্যান্ডার্ড’  সৌজন্যে দেশের সামনে আসা সেই রিপোর্ট থেকে জানা যায়, গত ৪৫ বছরের মধ্যে মোদী সরকারের আমলে বেকারি সর্ব্বোচ্চ সীমায় পৌঁছেছে।

Comments
Loading...