সারদার টাকা ফেরাতে এক সদস্যের কমিটি গঠনের ভাবনা হাইকোর্টের

সারদার আমানতকারীদের টাকা ফেরত দেওয়ার জন্য এক সদস্যের কমিটি গঠনের ভাবনা কলকাতা হাইকোর্টের। যদিও কবে, কীভাবে, কার নেতৃত্বে এই কমিটি গঠন করা হবে সে নিয়ে চূড়ান্ত কোনও সিদ্ধান্ত এখনও নেওয়া হয়নি বলে জানান, বিচারপতিরা। তবে আমানতকারীদের টাকা দ্রুত ফেরত দেওয়ার ব্যাপারে উদ্যোগী হাইকোর্ট। 

সারদা মামলার তদন্তে শ্যামল সেন কমিশনের জমা দেওয়া রিপোর্ট এখনও কেন কলকাতা হাইকোর্টে পড়ে রয়েছে সে নিয়ে প্রশ্ন তোলেন ভারপ্রাপ্ত প্রধান বিচারপতি রাজেশ বিন্দল। 

শ্যামল সেন কমিশন গঠন করার সময় রাজ্য সরকার ১৩৮ কোটি টাকা কমিশনে দেয় আমানতকারীদের দেওয়ার জন্য। কিন্তু এই বিপুল অঙ্কের টাকা এখনও কমিশনের ব্যাঙ্ক  অ্যাকাউন্টে পড়ে রয়েছে। এই টাকার মধ্যে থেকে কিছু রাজ্য তার প্রয়োজনে ব্যবহার করেছে। কমিশনের  অ্যাকাউন্টে জমে থাকা টাকা আমানতকারীদের দেওয়ার বন্দোবস্ত করা যায় কিনা তাও জানতে চেয়েছেন বিচারপতিরা। 

পাশাপাশি তদন্তভার হাতে নেওয়ার পর বেশকিছু সম্পত্তি আটক করে সিআইয়ের হাতে যে টাকা আছে তা এক সদস্যের কমিটির মাধ্যমে আমানতকারীদের দেওয়া যায় কিনা তা নিয়েও প্রশ্ন করেছে আদালত। 

শ্যামল সেন কমিশনের চূড়ান্ত রিপোর্টে বিচারপতিদের সামনে পেস করার কথাও এদিন বিচারপতিরা বলেছেন। 

এই সমস্ত বিষয় নিয়েই ২৯ জুন পরবর্তী শুনানির দিন ধার্য করা হয়েছে।

Comments
Loading...