ভারতে প্রথম চালকবিহীন ট্রেনের সূচনা দিল্লিতে, উদ্বোধন করলেন প্রধানমন্ত্রী

চালকবিহীন ট্রেন তাও আবার যাত্রীবাহী! সোমবার প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর হাত ধরে দেশের প্রথম স্বয়ংক্রিয় ট্রেনের যাত্রা শুরু হল রাজধানী দিল্লিতে। এদিন দিল্লি মেট্রোর ম্যাজেন্টা লাইনে এই স্বয়ংক্রিয় ট্রেনের উদ্বোধন করেন প্রধানমন্ত্রী। জনকপুরী ওয়েস্ট থেকে বোটানিক্যাল গার্ডেন, ৩৭ কিলোমিটার রাস্তায় চলাচল করবে দেশের প্রথম চালকবিহীন ট্রেন। এর ফলে সারা বিশ্বের সাত শতাংশ মেট্রো নেটওয়ার্কের এলিট গ্রুপ, যারা চালকবিহীন ট্রেন পরিষেবা পরিচালনা করছে, সেই তালিকায় ঢুকে পড়ল দিল্লি মেট্রো রেল কর্তৃপক্ষ।
ভার্চুয়াল অনুষ্ঠানের মধ্য দিয়ে দেশের প্রথম চালকবিহীন ট্রেনের উদ্বোধন করে প্রধানমন্ত্রী বলেন, স্মার্ট সিস্টেমের মাধ্যমে ভারত কত দ্রুত এগিয়ে চলেছে এই স্বয়ংক্রিয় ট্রেনই তার প্রমাণ।
ড্রাইভারলেস ট্রেন টেকনোলজি বা চালকবিহীন ট্রেন প্রযুক্তির চার রকম গ্রেড রয়েছে। GoA 1 গ্রেডের স্বয়ংগক্রিয় ট্রেনে থাকেন একজন চালক। GoA 2 ও GoA 3 গ্রেডের প্রযুক্তি ব্যবস্থায় ট্রেন চালকের দায়িত্ব থাকে কেবল আপৎকালীন পরিস্থিতিতে। আর GoA 4 ব্যবস্থায় সম্পূর্ন স্বয়ংক্রিয় ব্যবস্থায় চলে ট্রেন। এই ব্যবস্থাতেই রাজধানী দিল্লিতে শুরু হল চালকবিহীন ট্রেন পরিষেবা। ম্যাজেন্টা লাইনের পর এবার দিল্লি মেট্রোর পিঙ্ক লাইনেও এই আধুনিক প্রযুক্তির ট্রেন চলাচল শুরু হবে। আগামী বছরের মাঝামাঝি থেকে মজলিস পার্ক থেকে শিব বিহার এলাকা পর্যন্ত সেই পরিষেবা চালু হয়ে যাবে বলে দিল্লি মেট্রো কর্তৃপক্ষ সূত্রে খবর।
প্রসঙ্গত, ২০১৭ সাল থেকে দিল্লি মেট্রো রেল কর্তৃপক্ষ একাধিকবার পরীক্ষামূলভাবে এই স্বয়ংক্রিয় ট্রেন চালিয়েছে। চলতি বছরের মে মাসেই এই চালকবিহীন ট্রেন চালু হয়ে যাওয়ার কথা ছিল। কিন্তু অতিমারি করোনা পরিস্থিতিতে সেই পরিকল্পনা মুলতুবি রাখা হয়েছিল। অবশেষে সোমবার প্রধানমন্ত্রীর হাত ধরে দেশের প্রথম চালকবিহীন ট্রেনের উদ্বোধন হল রাজধানী শহরে।

Comments
Loading...