কাশ্মীরে ৩ পুলিশ কর্মীকে অপহরণ করে খুনের অভিযোগ জঙ্গিদের বিরুদ্ধে

শুক্রবার সকালে কাশ্মীরে ৩ পুলিশ কর্মীকে অপহরণ করে খুনের অভিযোগ উঠল জঙ্গিদের বিরুদ্ধে। জানা গেছে, দক্ষিণ কাশ্মীরের সোপিয়ানের কাপরান গ্রামে ৪ পুলিশ কর্মীর বাড়িতে শুক্রবার প্রায় ভোর রাতে হামলা চালায় জঙ্গিরা। গ্রামবাসীদের তৎপরতায় এক জন পুলিশকর্মীকে অপহরণের চেষ্টা ব্যর্থ হলেও, তুলে নিয়ে যাওয়া হয় ৩ পুলিশ কর্মীকে। পরে সোপিয়ানে তাঁদের গ্রামের কাছেই এই ৩ পুলিশ কর্মীর গুলিবিদ্ধ মৃতদেহ উদ্ধার হয়। কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র মন্ত্রক সূত্রে খবর, মৃত ৩ পুলিশ কর্মীই স্পেশাল পুলিশ অফিসার পদ মর্যাদার ছিলেন। পুলিশ জানিয়েছে, এই ৩ পুলিশকর্মীকে চাকরি থেকে ইস্তফা দিতে বলা হয়েছিল জঙ্গিদের পক্ষ থেকে। তাতে রাজি না হওয়াতেই খুন করা তাঁদের হয়েছে বলে অনুমান পুলিশের।
এই ঘটনার প্রতিক্রিয়ায় কেন্দ্রকে তীব্র আক্রমণ করেছেন জম্মু-কাশ্মীরের প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী মেহবুবা মুফতি। ট্যুইটে তিনি লিখেছেন, যেভাবে কাশ্মীরে নিরাপত্তারক্ষী ও তাঁদের পরিবারবর্গকে অপহরণের ঘটনা বাড়ছে, তাতে স্পষ্ট কেন্দ্রের বল প্রয়োগের নীতি কাজ করছে না। ঘটনাকে বর্বরোচিত আখ্যা দিয়ে শহিদ ৩ পুলিশ কর্মীকে শ্রদ্ধা জানানো হয়ে জম্মু-কাশ্মীর পুলিশের তরফে। কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র মন্ত্রকের তরফে বলা হচ্ছে, লাগাতার সেনা অভিযানের মুখে পড়ে চাপে দিশেহারা হয়ে পড়েছে জঙ্গিরা। বড় কোনও নাশকতার ঘটনা তারা সংগঠিত করতে পারছে না। কমেছে পুলিশকে লক্ষ্য করে পাথর ছোড়ার ঘটনাও। তাই মরিয়া হয়ে এখন নিরাপত্তাকর্মীদের অপহরণ ও আক্রমণ করছে তারা। গত সপ্তাহেই পুলিশ কর্মীদের ইস্তফা দিতে বলে একটি ভিডিও প্রচার করেছিল হিজবুল মুজাহিদিন। তাঁদের সেই নির্দেশ অমান্য করাতেই এই খুন বলে অনুমান। এর আগে সপ্তাহ তিনেক আগে ৩ পুলিশকর্মী ও তাঁদের পরিবারসহ মোট ১১ জনকে দক্ষিণ কাশ্মীরের বিভিন্ন এলাকা থেকে অপহরণ করে জঙ্গিরা। পরে জঙ্গিদের আত্মীয়দের পুলিশ মুক্তি দেওয়ার বিনিময়ে তাঁরা ছাড়া পান।

Comments
Loading...