বাইকপ্রেমীদের অপেক্ষা শেষ। অবশেষে ভারতের বাজারে লঞ্চ হল দুই ইঞ্জিন বিশিষ্ট কেটিএম ডিউক ৭৯০। দাম শুরু ৮ লক্ষ ৬৪ হাজার টাকা থেকে। সোমবারই ভারতীয় বাজারে আত্মপ্রকাশ করেছে ১৮৯ কেজি ওজন বিশিষ্ট ট্যুইন ইঞ্জিনের কেটিএম ডিউক ৭৯০। প্রযুক্তি, স্টাইল, ডিজাইন, ফিচার থেকে দাম, সবেতেই প্রতিদ্বন্দ্বীদের পাল্লা দেবে এই সুপার বাইক। কেটিএমের প্রধান দুই প্রতিদ্বন্দ্বী, জাপানের সুজুকি জিএসএক্স-এস ৭৫০ এবং কাওয়াসাকি জেড ৯০০ মডেলের চেয়ে অনেকটাই বেশি পড়ছে ডিউক ৭৯০ এর দাম। সুজুকি জিএসএক্স-এস ৭৫০ এবং কাওয়াসাকি জেড ৯০০ দাম যথাক্রমে ৭ লক্ষ ৫২ হাজার এবং ৭ লক্ষ ৬৯ লক্ষ টাকা। তবে কেটিএমের ইউরোপীয় প্রতিদ্বন্দ্বী ডুকাটি কিংবা ট্রায়াম্ফের একই মডেলের দামের চেয়ে কম রাখা হয়েছে এই বাইকের দাম।

বর্তমানে ভারতের ৯ টি শহর, মুম্বই, পুনে, সুরাট, কলকাতা, দিল্লি, গুয়াহাটি, বেঙ্গালরু, হায়দরাবাদ ও চেন্নাইতে পাওয়া যাবে কেটিএমের এই লেটেস্ট মডেল।
ভারতের বাইকপ্রেমীদের জন্য প্রথম টুইন ইঞ্জিন বিশিষ্ট বাইক এনেছে কেটিএম। আপাতত কালো এবং কমলা, এই দুই রঙে পাওয়া যাবে কেটিএম ডিউক ৭৯০। মডেলটিতে রয়েছে ৭৯৯-সিসি এলসি ৮ সি প্যারালাল টুইন ইঞ্জিন। বাইকারদের পছন্দের তালিকায় একদম প্রথমদিকে কেটিএম ডিউক ৭৯০ থাকার অন্যতম কারণ হল সুপার বাইকটির অবিশ্বাস্য গতি। উন্নত ব্যালান্স সিস্টেমের জন্য আঁকাবাঁকা রাস্তাতেও নিরাপদভাবে হাইস্পিডে ডিউক ৭৯০ ছোটাতে পারবেন বাইকার। ৭৯৯ সিসি ক্ষমতা সম্পন্ন এই বাইকে রয়েছে ৮ টি ভাল্ভ এবং ডিওইএইচ ইঞ্জিন, যা ৮৭ এনএম টর্ক ও ১০৫ অশ্বশক্তি (এইচপি) বিশিষ্ট। কেটিএম ডিউক ৭৯০ মডেলে রয়েছে বিভিন্ন রাইডিং মোডের সুবিধা। স্মুথ, স্ট্যান্ডার্ড, ডিরেক্ট অলমোস্ট ১/১ এবং ট্র্যাক-স্পোর্ট-স্ট্রিট এই চার মোডে ডিউক ৭৯০ চালানো যাবে। ডিউক ৭৯০ এর আর একটি বৈশিষ্ট্য হল, নিজের সুবিধামতো ব্রেক এবং ক্ল্যাচ, এমনকী বসার আসনও নিয়ন্ত্রণ করে নেওয়া যায়। সুপার বাইকটির ফুয়েল ট্যাঙ্ক ক্যাপাসিটি ১৪ লিটার।

ধারাবাহিকভাবে পাশে থাকার জন্য The Bengal Story র পাঠকদের ধন্যবাদ। আমরা শুরু করেছি সাবস্ক্রিপশন অফার। নিয়মিত আমাদের সমস্ত খবর এসএমএস এবং ই-মেইল এর মাধ্যমে পাওয়ার জন্য দয়া করে সাবস্ক্রাইব করুন। আমরা যে ধরণের খবর করি, তা আরও ভালোভাবে করতে আপনাদের সাহায্য আমাদের উৎসাহিত করবে।

Login Subscribe

You may also like