মমতা: কাঁথি থেকে ৩০ জন উত্তরপ্রদেশের গুন্ডা ধরা পড়েছে! বহিরাগতদের ভোট লুট করতে দেব না

প্রথম দফার ভোটের ২৪ ঘণ্টা আগে বহিরাগত ইস্যুতে সুর সপ্তমে চড়ালেন তৃণমূল নেত্রী। দাসপুরের জনসভা থেকে মমতা ব্যানার্জির চাঞ্চল্যকর অভিযোগ, কাঁথি বাসস্ট্যান্ড থেকে ৩০ জন সশস্ত্র দুষ্কৃতিকে গ্রেফতার করা হয়েছে। ধৃতরা প্রত্যেকেই উত্তরপ্রদেশের বাসিন্দা বলে দাবি করেন মমতা।

শুক্রবার পশ্চিম মেদিনীপুরে তিনটি জনসভা করবেন তৃণমূল নেত্রী। প্রথম জনসভা করেন দাসপুরে। সেখানে তিনি বহিরাগত ইস্যুতে ফের বিজেপিকে কটাক্ষ করে। বলেন, আমার কথার দাম আছে। আজ প্রমাণ হয়ে গেছে বাইরের গুন্ডারা বাংলায় ঢুকছে। উদ্দেশ্য ভোট লুট। চন্দ্রকোনার সভা থেকে মমতা ব্যানার্জি বলেন, বহিরাগত গুন্ডারা কার কার বাড়িতে আশ্রয় নিয়েছে সব জানি। মমতার কথায়, মীর্জাফররা বহিরাগত গদ্দারদের দিয়ে আসছে। কিন্তু তাতে কোনও লাভ নেই। সবাইকে দেখে রেখেছি। পালানোর পথ পাবে না।

দাসপুরের সভা থেকে তাঁর আরও অভিযোগ, নন্দীগ্রামে হলদিয়ার বড় বড় গুণ্ডাদের আনা হয়েছে। এরপরেই তৃণমূল নেত্রী সাধারণকে আশ্বস্থ করে বলেন, চিন্তা নেই মা-বোনেরা। আমি মেদিনীপুরে যাচ্ছি ২৮ তারিখ। সব লক্ষ্য রাখব। নন্দীগ্রামে ভোটগ্রহণ শেষ করে তারপর আমি মেদিনীপুর ছাড়ব।

এদিন মা-বোনেদের উদ্দেশ্যে মুখ্যমন্ত্রী বলেন,আমি বলছি আপনারা বহিরাগতদের ঢুকতে দেবেন না। গুণ্ডামি করতে এলা আপনারা ঝাঁটা, বটি নিয়ে তেড়ে যাবেন। এদিন মমতার মুখে উঠে আসে রেল বিক্রির কথা। তিনি বলেন, রেল, সেল, বি এস এন এল বিক্রি করে সেই টাকা নিজেদের পকেটে রেখে দিয়েছে। ওই গুলো আপনাদের টাকা। মমতার প্রশ্ন, বিজেপি বাংলায় ক্ষমতায় আসবে। গুজরাতের দাঙ্গা ভুলে গেছেন?

Comments
Loading...