আদি বিজেপির নামে দেওয়াল দখল, আলাদা প্রতীকে লড়াই! বর্ধমানে প্রকাশ্যে বিজেপির গোষ্ঠীদ্বন্দ্ব

আমাদের কাছে ব্যক্তির চেয়ে দল বড়, প্রতিক্রিয়া বিজেপির জেলা সহ সভাপতির

রাজ্য বিজেপি গুরুত্ব না দিলে এখানে পদ্ম ফুটবে না। কমিশন যে প্রতীক দেবে সেই চিহ্নে লড়ব। হুঁশিয়ারি আদি বিজেপি কর্মী প্রবীর দত্তর। বর্ধমানের মানকরে ফের একবার বিজেপির গোষ্ঠী দ্বন্দ প্রকাশ্যে।

রবিবার থেকে আদি বিজেপির নামে দেওয়াল লিখন শুরু করেন প্রবীর দত্তের অনুগামীরা। প্রবীর দত্ত দাবি করেন, তিনি ৯৩ সাল থেকে বিজেপি করছেন অথচ এখন তাঁর কোনও গুরুত্ব নেই। তৃণমূল থেকে আগত নেতারাই এখন গুরুত্বপূর্ণ। এর পরেই বিজেপি নেতার হুঁশিয়ারি রাজ্য নেতৃত্ব তাদের গুরুত্ব না দিলে এখানে পদ্ম ফুটবে না।

[আরও পড়ুন- সূর্যকান্ত মিশ্র: সরকারে এলে ১ বছরে শূন্যপদ পূরণ, কর্মহীনদের কাজ দিতে খোলা হবে সমস্ত ছোট-মাঝারি কারখানা]

পূর্ব বর্ধমানের বিজেপির জেলা সহ সভাপতি বলেন, আমাদের কাছে ব্যক্তির চেয়ে দল বড়, দলের চেয়ে দেশ। দলের আদর্শ মেনে যাঁরা চলবে, তাঁরা দলে থাকবে।

এদিকে হুঁশিয়ারিকে আমল দিচ্ছেন না আদি বিজেপির নেতারা। কদিন আগেই ঢাক-ঢোল পিটিয়ে একটি দেওয়াল দখল করে তাতে আদি বিজেপি লিখে দিয়েছেন তাঁরা। এভাবে একাধিক দেওয়াল দখল নেবেন তাঁরা, এমনই পরিকল্পনা রয়েছে। সেক্ষেত্রে কলকাতার নেতৃত্ব গুরুত্ব না দিলে আদি বিজেপি নেতা কর্মীরা অন্য প্রতীকে নব্য বিজেপির বিরুদ্ধে লড়বেন বলে সিদ্ধান্ত নিয়েছেন প্রবীর দত্তরা।

এদিকে বর্ধমানে গোষ্ঠীদ্বন্দ্ব সামাল দিতে নাজেহাল বিজেপি। কদিন আগেই আদি-নব্য দ্বন্দ্বে শহরের প্রাণকেন্দ্রে বিজেপির জেলা পার্টি অফিসে ভাঙচুর চালান হয়। পুড়িয়ে দেওয়া হয় একাধিক গাড়ি। তারপর আবার আদি-নব্য দ্বন্দ্ব প্রকাশ্যে চলে আসায় হাসি ফুটেছে স্থানীয় তৃণমূল নেতৃত্বের মধ্যে আর অস্বস্তি বাড়ছে গেরুয়া শিবিরের।

Comments
Loading...