স্কিজোফ্রেনিক কেন্দ্রের জন্যই দ্বিতীয় ঢেউয়ে মহা সংকটে ভারত, মোদী সরকারকে বিঁধলেন অমর্ত্য সেন

কেন্দ্রীয় সরকারে নম্বর টু অমিত শাহ ঘোষণা করেছেন, নরেন্দ্র মোদীর যোগ্য নেতৃত্বে ভারত অত্যন্ত দ্রুত দ্বিতীয় ঢেউ সামাল দিতে সমর্থ হয়েছে। আর নোবেলজয়ী অর্থনীতিবিদ অধ্যাপক অমর্ত্য সেন বললেন, আসল কাজ না করে নাম কিনতে ব্যস্ত থাকায় দেশে এমন ভয়াবহ চেহারা নিয়েছে করোনা। 

বরাবরই বিজেপি-আরএসএসের তীব্র সমালোচক অধ্যাপক অমর্ত্য সেন শুক্রবার মোদী সরকারকে দ্বিধাগ্রস্ত বলে উল্লেখ করে বলেন, দ্বিধাগ্রস্ত কেন্দ্রীয় সরকার কাজের কাজ না করে নাম কেনার কাজে ব্যস্ত থাকার ফল ভোগ করছে ভারত। 

হার্ভার্ড ইউনিভার্সিটির ইকনমিক্স ও ফিলোজফির অধ্যাপক অমর্ত্য সেন বলেন, অথচ ভারত করোনার বিরুদ্ধে যুদ্ধে বেশ ভাল জায়গায় ছিল। প্রথমত, ভারতেই তৈরি হচ্ছে টিকা এবং দ্বিতীয়ত ভারতবাসীর ইনুউনিটি বেশি। ফলে শুরুতে আমরা বেশ সুবিধাজনক জায়গায় ছিলাম, রাষ্ট্রীয় সেবা দলের একটি অনুষ্ঠানে বলেন নোবেলজয়ী। 

পাশাপাশি অধ্যাপক সেনের কথায় উঠে আসে সেই সুবিধাজনক অবস্থান ধরে রাখতে না পারাও। ডক্টর সেন বলেন, দ্বিধাগ্রস্ত মোদী সরকার সংকটকে ঠিক মতো উপলব্ধি করে উঠতে পারেনি। তাই দুর্যোগ মোকাবিলা হয়েছে স্কিজোফ্রেনিক রোগীর মতো! তাঁর মতে, ভারত কোনও পরিকল্পনা ছাড়াই নিজেকে বিশ্বের রক্ষাকর্তা হিসেবে তুলে ধরল। তারপর কী হয়েছে সেটাও গোটা বিশ্ব দেখছে। 

অধ্যাপক সেনের এই সমালোচনার উত্তর বিজেপি কীভাবে দেয় সেটাই এখন দেখার।

Comments
Loading...