দিল্লি-হাওড়া, মুম্বই-হাওড়া সহ ১০৯ রুটে বেসরকারি ট্রেন চালাবে কেন্দ্র, দ্রুত টেন্ডার ডাকছে রেল, এরপর লোকাল ট্রেনেও বেসরকারিকরণের সিদ্ধান্ত

হাওড়া-দিল্লি, হাওড়া-মুম্বই সহ ১০৯ রুটে বেসরকারি সংস্থাকে দিয়ে প্যাসেঞ্জার ট্রেন চালাতে চায় মোদী সরকার। এজন্য বেসরকারি সংস্থাগুলোর আগ্রহ খতিয়ে দেখার কাজ শুরু হয়েছে। আগ্রহীদের সংখ্যার উপর নির্ভর করবে টেন্ডার প্রক্রিয়া।

জানা গিয়েছে, হাওড়া-দিল্লি, হাওড়া-মুম্বই, হাওড়া-চেন্নাই, দিল্লি-মুম্বই সহ ১০৯ টি রুটে ১৫১ টি ট্রেন বেসরকারি হাতে দিতে তৈরি সরকার। গোটা প্রকল্পের বেসরকারিকরণ হলে সরকারের কোষাগারে ঢুকবে ৩০ হাজার কোটি টাকা বা ৪ বিলিয়ন ডলার।

কোভিড পরবর্তী ভারতে অর্থনীতিকে চাঙা করতে এবং কর্মসংস্থানের লক্ষ্যে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী এই পদক্ষেপের কথা উল্লেখ করেছেন। যদিও এই ক্ষেত্রে নীতিগত সিদ্ধান্ত গত ডিসেম্বরেই হয়ে গিয়েছিল। রেলের বেসরকারিকরণের এই পদক্ষেপের তীব্র সমালোচনা করেছে বিরোধীরা। তৃণমূল সাংসদ মহুয়া মৈত্রের ট্যুইট, কোনও আলোচনা হল না, বিতর্ক হল না। কোভিডকে শিখণ্ডি বানিয়ে বিরোধী মতামতকে উড়িয়ে দিয়ে রেলকে বেচে দেওয়া হল।

রেল মন্ত্রক সূত্রের খবর, প্রথম ধাপে দূরপাল্লার মেল-এক্সপ্রেস বেসরকারি হাতে তুলে দেওয়ার পর মুম্বই-কলকাতার লোকাল ট্রেন পরিষেবার বেসরকারিকরণ হবে।

কোভিড পরবর্তী পরিস্থিতিতে সবচেয়ে বড় বিপদ হিসেবে এসেছে অর্থনৈতিক দুরাবস্থা। দেশে মানুষের হাতে কাজ নেই। কারখানায় উৎপাদন নেই। রাজকোষ ঘাটতি মেটাতে বেসরকারিকরণের পথে হাঁটতে হবে মোদীকে। এরই ফলশ্রুতি হিসেবে আগামী বছর থেকেই হাওড়া-দিল্লি বা দিল্লি-মুম্বই রুটে ছুটবে বেসরকারি প্যাসেঞ্জার ট্রেন। যে ট্রেনের গতিবেগ হবে ঘণ্টায় সর্বোচ্চ ১৬০ কিলোমিটার। ভাড়া ঠিক করবে বেসরকারি সংস্থাই। চালক ও গার্ড দেবে রেল।

Comments
Loading...