পৃথিবীর অবক্ষয় কমাতে আসছে নতুন প্লাস্টিক, জানুন এর আসল বিশেষত্ব

বর্তমানে পরিবেশ নিয়ে আপাদমস্তক গভীর চিন্তায় রয়েছেন গোটা পরিবেশ বিশেষজ্ঞ মহল। ট্রাম, বাস থেকে ধোঁয়া বা খাদ্য তালিকায় বাদ পড়ে যাওয়া আবর্জনা সব সমস্যাকে ছাপিয়ে গেছে প্লাস্টিক সমস্যা। প্লাস্টিকের বাড়বাড়ন্তে যে বিশ্বের মানুষের কতোটা খারাপ সময় যাচ্ছে তা এখন নতুন করে বলার দরকার হয় না। তবে প্লাস্টিকের ব্যবহার আমাদের পাশাপাশি অসহায় জীবকূলকেও নানা সমস্যায় ফেলছে।

এমনকি সমুদ্র বা নদীর জলে যে হারে প্লাস্টিক মিশছে তার প্রকোপে প্রাণ হারাচ্ছে বহু সামুদ্রিক জীব। বেশ কিছু বছর আগেও হয়তো প্লাস্টিক আমাদের জন্য এতোটা সমস্যা বয়ে আনে নি। কিন্তু যতোদিন এগোচ্ছে ততোই বোঝা যাচ্ছে প্লাস্টিকের কারণেই দুনিয়ার অবক্ষয় ক্রমাগত এগিয়ে আসছে। বলা বাহুল্য, এখনও পর্যন্ত সারা পৃথিবীতে প্রতি বছর ৩০০ মিলিয়ন টন প্লাস্টিক তৈরি করা হয়। যার মধ্যে অর্ধেকের বেশি ব্যবহার অযোগ্য, অর্থাৎ একবার ব্যবহার করার পর তা আর ব্যবহার করা যায় না।

তবে এসব কথা ভেবেই এবার বিজ্ঞানীরা একটি নতুন ধরনের প্লাস্টিক তৈরি করেছেন। আর এই নতুন ধরণের প্লাস্টিকের নাম দেওয়া হয়েছে পিবিটিএল (PBTL)। বলে রাখা ভালো এই প্লাস্টিক বাইসাইকেলিইক-থিওল্যাকটোনের দ্বারা কেমিক্যাল ব্লক তৈরি করে নির্মাণ করা হয়েছে। অনেকেই মনে করতে পারেন এই প্লাস্টিকের বিশেষত্ব কোথায়? আসলে এটি সাধারণ প্লাস্টিক মতোই যতবারই ভাঙচুর করে নতুন গড়া হোক এর গঠন একই থাকবে। আপামর বিশ্বের মানুষের এবং অন্যান্য প্রাণীদের কথা ভেবেই এই প্লাস্টিকের আবিষ্কার করা হয়েছে। তবে এটি কতটা মাত্রায় তৈরি করা যাবে আর সাধারণ মানুষের মধ্যে কবে পৌঁছে দেওয়া যাবে তা এখনো জানা সম্ভব হয় নি। কিন্তু আশা করা হচ্ছে এই প্লাস্টিক আমাদের সমস্যার একটা না একটা হাল বের করবেই।

Comments
Loading...