আয়নার সামনে দাঁড়িয়ে বিকিনি পড়ে সেলফি তুলতেই ব্যস্ত! নেটদুনিয়ায় উষ্ণতা ছড়াচ্ছেন অভিনেত্রী

২০০৮ সালে তেলেগু ছবির মাধ্যমে অভিনয় জগতে পা রাখা। সিক্কুলাম ছবিতে একটি সাইড চরিত্রে প্রথম দেখা যায় তাঁকে। এরপর ২০১০ সালে হিন্দি ছবির মাধ্যমে পুরোপুরিভাবে অভিনেত্রী হয়ে ওঠেন শ্রদ্ধা দাস। বাঙালি পরিবারের মেয়ে হয়েও জন্ম হয়েছিল মহারাষ্ট্রে। সাংবাদিকতা নিয়ে মুম্বাই বিশ্ববিদ্যালয় থেকে পড়াশোনা করেন তিনি। তবে সাংবাদিক হওয়ার ইচ্ছা তাঁর ছিল না। ছোটবেলা থেকেই থিয়েটার ও অভিনয়ে বেশি আগ্রহী ছিলেন তিনি। শেষমেষ নিজের স্বপ্ন পূরণ করলেন ছবিতে অভিনয় করে।

তবে টলিউড ইন্ডাস্ট্রিতে ঢুকবেন কখনো ভাবেননি। কিন্তু তিনি একজন বাঙালি বাংলা সিনেমায় অভিনয় না করলে চলে। ২০১৪ সালে “দ্যা রয়্যাল বেঙ্গল টাইগার” সিনেমা দিয়ে টলিউডের পা রাখেন শ্রদ্ধা। তার পরের বছরই জিতের বিপরীতে প্যান্থার ছবিতে দেখা যায় তাঁকে। ছবিতে আইটেম ডান্সার হিসেবে নিজের ডান্সের জন্য প্রচুর প্রশংসা পেয়েছিলেন তিনি। তাঁর সেক্সি আওয়ার গ্লাস ফিগারে ফিদা হয়ে গিয়েছিল বহু দর্শক। শ্রদ্ধা নিজের স্বাস্থ্য সম্পর্কে সচেতন। এক্সারসাইজ সঙ্গে করার ডায়েট নিয়মমাফিক মেনে চলেন তিনি। নিয়মিত জিমে যান তিনি।

সোশ্যাল মিডিয়াতেও তাঁর ফ্যান ফলোইং কিছু কম নয়, প্রায় ১.৭ মিলিয়নের ওপর ফলোয়ার্স রয়েছে অভিনেত্রীর। বেশ একটিভও থাকেন তিনি। প্রায়শই নানা ফটোশুট ও ভিডিও শেয়ার করে নেন নিজের ভক্তদের সঙ্গে। সম্প্রতি নিজের একটি বোল্ড ছবি ইনস্টাগ্রামে পোস্ট করেন শ্রদ্ধা। আয়নার সামনে দাঁড়িয়ে একটি নীল রঙের বিকিনি পড়ে মিরর সেলফি তুললেন অভিনেত্রী। মুহূর্তের মধ্যেই নেটিজেনদের নজর কাড়ে সেই ছবি। নিজের বোল্ডনেস দিয়ে রীতিমতো উষ্ণতা ছাড়াতে ব্যস্ত শ্রদ্ধা দাস। আপনিও দেখে নিন সেই ছবি।

Comments
Loading...