অনেক রাজ্যেই প্রতিশ্রুতি পালন করতে পারেনি বিজেপি। প্রতিশ্রুতি মাফিক দার্জিলিং থেকে গোর্খাল্যান্ড আলাদা করে পৃথক কেন্দ্রশাসিত অঞ্চল গঠন হোক শীঘ্রই, এমনটাই দাবি করলেন বিজেপি সাংসদ সুব্রহ্মণ্যম স্বামী।
ফের দলের গঠনমূলক সমালোচনায় প্রাক্তন কেন্দ্রীয় মন্ত্রী তথা রাজ্যসভায় বিজেপির সাংসদ সুব্রহ্মণ্যম স্বামী। এর আগে এয়ার ইন্ডিয়া বিক্রি নিয়ে মোদী সরকারের বিরুদ্ধে ক্ষোভ উগরে দিয়েছিলেন তিনি। সোশ্যাল মিডিয়ায় ঘোষণা করেছিলেন, এয়ার ইন্ডিয়ার মতো দেশের ‘পারিবারিক সম্পত্তি’ বিক্রি করলে প্রয়োজনে সুপ্রিম কোর্টে সরকারের বিরুদ্ধে মামলা করবেন তিনি। এবার রাজ্যভিত্তিক বিজেপির প্রতিশ্রুতি পালনে অক্ষমতার দিকে আঙুল তুলেছেন এই প্রবীণ বিজেপি নেতা। মঙ্গলবার নিজের ভেরিফায়েড ট্যুইটার হ্যান্ডেল থেকে বিজেপি সাংসদ লিখেছেন, ২০১৪ সাল থেকে তাঁর দল যে সাংগঠনিক সংস্কৃতিতে বিশ্বাস করে এসেছে সেদিকে নজর দেওয়া উচিত। তাঁর অভিযোগ, রাজ্যভিত্তিক যে যে প্রতিশ্রুতি দেওয়া হয়েছিল, তা কার্যকর করতে পারেনি বিজেপি। এরপরেই ফের তৃণমূলশাসিত পশ্চিমবঙ্গের দিকে নজর ঘোরান স্বামী। তিনি ট্যুইটারে লেখেন, গোর্খাল্যান্ড হল বিজেপির অগ্রাধিকারের বিষয়। প্রতিশ্রুতিমাফিক অতি অবশ্যই একে পৃথক কেন্দ্রশাসিত অঞ্চল হিসেবে গড়ে তুলতে হবে।


প্রসঙ্গত, পরপর তিনটি লোকসভা ভোটে দার্জিলিঙ থেকে জয় পেয়েছে বিজেপি। নির্বাচনোত্তর প্রতিশ্রুতির মধ্যে উল্লেখযোগ্য ছিল দার্জিলিঙকে পৃথক গোর্খাল্যান্ডে ভাগ করা। কিন্তু তা আর হয়নি। এ নিয়ে গত ২৩ জানুয়ারি নেতাজি সুভাষচন্দ্র বসুর জন্মবার্ষিকীর অনুষ্ঠানে দার্জিলিঙে গিয়ে বিজেপিকে নিশানা করেছিলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। তাঁর কটাক্ষ ছিল, ভোটের আগে গোর্খাল্যান্ডের প্রতিশ্রুতি দিয়ে জেতার পর পাহাড়মুখো হন না বিজেপি সাংসদরা। পাহাড়ে ‘আগুন লাগানোর’ জন্যই কাজ করে বিজেপি বলে অভিযোগ করেছিলেন মুখ্যমন্ত্রী। এই প্রেক্ষিতে বিজেপির অন্যতম জনপ্রিয় নেতা ও সাংসদ সুব্রহ্মণ্যম স্বামীর মন্তব্য বিশেষ তাৎপর্যপূর্ণ বলে মনে করছে রাজনৈতিক মহল।
পাশাপাশি, পশ্চিমবঙ্গের বিজেপির মাটি শক্ত করতে যথেষ্ট লড়াই চালিয়ে যাচ্ছে বিজেপি। লোকসভা ভোটে অবিশ্বাস্য ফল পাওয়ার পর ২০২১ সালের বিধানসভা ভোটকে পাখির চোখ করেছে গেরুয়া শিবির। কেন্দ্রীয় বিজেপির নেতৃত্বের বিভিন্ন ভাষণেও ঘুরেফিরে আসছে বাংলার কথা। আর ঠোঁটকাটা মন্তব্যের জন্য পরিচিত সুব্রহ্মণ্যম স্বামী কিছুদিন আগে কলকাতার ভিক্টোরিয়া মেমোরিয়ালের নাম বদলের দাবি জানিয়েছিলেন। এবার তিনি পৃথক গোর্খাল্যান্ডের জন্য মোদী সরকারের হস্তক্ষেপ চাইলেন।

ধারাবাহিকভাবে পাশে থাকার জন্য The Bengal Story র পাঠকদের ধন্যবাদ। আমরা যে ধরনের খবর করি, তা আরও ভালোভাবে করতে আপনাদের সাহায্য আমাদের উৎসাহিত করবে।

Login Support us

You may also like

Salman Khurshid in Delhi Riot
Assam Syllabus Change