দলত্যাগ বিরোধী আইনে বাতিল হোক সুনীল মণ্ডলের সাংসদ পদ, স্পিকারকে চিঠি সুদীপের

বিজেপিতে যাওয়া সুনীল মণ্ডলের সাংসদ পদ খারিজের জন্য আবেদন করল তৃণমূল। জানা গিয়েছে, বর্ধমান পূর্বের তৃণমূলত্যাগী এই নেতার সাংসদ পদ খারিজের জন্য স্পিকারকে চিঠি দিয়েছেন লোকসভায় তৃণমূলের দলনেতা সুদীপ ব্যানার্জি। লোকসভার স্পিকার ওম বিড়লার কাছে সুদীপ ব্যানার্জির আবেদন, দলত্যাগ বিরোধী আইন প্রয়োগ করে সুনীল মণ্ডলের সাংসদ পদ বাতিল করা হোক।

গত ১৯ ডিসেম্বর মেদিনীপুরের সভায় শুভেন্দু অধিকারীর সঙ্গে অমিত শাহের হাত ধরে বিজেপিতে যোগ দেন সুনীল মণ্ডল। তারপরেই তৃণমূলের বিরুদ্ধে একের পর এক অভিযোগ করছেন তিনি। এই প্রেক্ষিতে তাঁকে শুধু দল থেকে বহিষ্কার করতে চাইছে না তৃণমূল নেতৃত্ব। কারণ, তাতে সাংসদ পদে থেকে যাবেন সুনীল। তাই আগে সুনীল মণ্ডলের সাংসদ পদ বাতিলের জন্য আবেদন জানাচ্ছেন সুদীপ ব্যানার্জিরা।

এদিকে তৃণমূল ছেড়েই বর্ধমান পূর্বের সাংসদ সুনীল মণ্ডল সম্প্রতি দাবি করেছেন যে, বহু তৃণমূল সাংসদের বিজেপিতে যোগদান স্রেফ সময়ের অপেক্ষা। তাকে খুনের চক্রান্ত করছে তৃণমূল, এই অভিযোগ করে ইতিমধ্যেই ওয়াই- প্লাস ক্যাটেগরির সিআরপিএফ নিরাপত্তা পেয়ে গিয়েছেন তৃণমূল ছেড়ে বিজেপিতে যোগ দেওয়া এই সাংসদ। বর্ধমান পূর্বের সাংসদ সুনীলের নিরাপত্তার বিষয়ে গত শনিবার কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র মন্ত্রকের তরফে সিআরপিএফ-কে ওই নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। এখন তাঁর নিরাপত্তায় থাকছেন ১১ জন সিআরপিএফ জওয়ান। আর নিরাপত্তা পেয়েই তৃণমূলের উদ্দেশে সুনীলের হুঙ্কার, ‘আরও অনেকেই লাইনে আছে বিজেপিতে আসার জন্য। অন্তত ১৬-১৭ জন সাংসদ তৃণমূল থেকে বিজেপিতে আসবেনই।’ যদিও সুনীলের দাবিকে দিবাস্বপ্ন’ বলে কটাক্ষ করেছে তৃণমূল। সেই সঙ্গে তাঁর সাংসদ পদ বাতিলের আবেদন জানাচ্ছে তারা।

Comments
Loading...