পাওরি হো রাহি হ্যায়! ফাঁকা জনসভার ছবি দেখিয়ে তৃণমূলের ট্রোলিংয়ে বিদ্ধ বঙ্গ বিজেপি

অভিনব কায়দায় বিজেপিকে আক্রমণ

‘পাওরি হো রাহি হ্যায়’ এবার রাজনীতির ময়দানে। কদিন ধরেই বিজেপির একটি জনশূন্য জনসভার ছবি সোশ্যাল মিডিয়ায় ঘুরে বেড়াচ্ছে। যেখানে দেখা যাচ্ছে মঞ্চে বিজেপির কিছু নেতা থাকলেও দর্শক আসনে মাত্র একটি চেয়ারেই একজন ছাতা মাথায় বসে রয়েছেন। তৃণমূলের ট্যুইটার হ্যান্ডেল থেকে এই ছবি পোস্ট করে ক্যাপশনে লেখা হয়, এটা বিজেপি ফর বেঙ্গল, এটা জনসভা, আর এখানে পাওরি হচ্ছে। অভিনব কায়দায় রাজনৈতিক প্রতিপক্ষকে তৃণমূলের এই আক্রমণ ইতিমধ্যেই সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল হয়েছে। 

কদিন ধরেই সোশ্যাল মিডিয়ায় ট্র্যান্ডিং চলছে ‘পাওরি হো রাহি হ্যায়’।  সোশ্যাল মিডিয়ায় সক্রিয় অথচ ‘পাওরি হো রাহি হ্যায়’ সম্পর্কে জানে না এমন লোক খুঁজে পাওয়া দুষ্কর। 

কদিন আগেই প্রতিবেশী দেশ পাকিস্থানের একজন কনটেন্টে ক্রিয়েটার দানানি একটি ভিডিও পোস্ট করেন। ১৪ ফেব্র্রুয়ারি ওই পাক যুবতী ভিডিওতে বলেন, এটা আমার গাড়ি, এটা আমি, আর এখানে ‘পাওরি’ হচ্ছে। দাননি আসলে বলতে চেয়েছিলেন পার্টি হচ্ছে। বলতে গিয়ে তিনি এই শব্দটি উচ্চারণ করেন।  ইনস্টাগ্রামে ভিডিওটি আপলোড হওয়ার সঙ্গে সঙ্গে তা ভাইরাল হয়ে যায়। ‘পাওরি হো রাহি হ্যায়’ এতটাই জনপ্রিয়তা পায় যে এটাকে নিয়ে একটি গানও বানিয়ে ফেলেন, যশরাজ মুখাতে। এবার এই জনপ্রিয় শব্দবন্ধনীকে হাতিয়ার করে বিজেপিকে বিঁধল তৃণমূল। 

 

View this post on Instagram

 

A post shared by Dananeer | 🇵🇰 (@dananeerr)

জনপ্রিয় গানের প্যারোডি তৈরী করে ভোট যুদ্ধে নেমেছে বিজেপি এবং সিপিএম।  বামেদের টুম্পা সোনা ইতিমধ্যেই সোশ্যাল মিডিয়ায় তুমুল ঝড় তুলেছে। বিজেপির ‘পিসি যাও’ গানও বেশ জনপ্রিয়তা পেয়েছে।  এই পরিস্থিতিতে সোশ্যাল মিডিয়ার ট্রেন্ডিং শব্দকে নিয়ে প্রতিপক্ষের সমালোচনা বেশ অভিনব বলে মনে করছেন অনেকেই।             

     

Comments
Loading...