২ অক্টোবর খুলছে চিড়িয়াখানা, ২৩ সেপ্টেম্বর খুলছে জঙ্গল, তবে আপাতত বন্ধ হাতি সাফারি, জানালেন বনমন্ত্রী

পুজো যত এগিয়ে আসছে, রাজ্যজুড়ে আনলক পর্ব ততই গতি পাচ্ছে। শুক্রবার নবান্নের তরফে জানিয়ে দেওয়া হল, আগামী ২ অক্টোবর থেকে খুলে যাচ্ছে রাজ্যের সমস্ত চিড়িয়াখানা। এ মাসের ২৩ তারিখ থেকে খুলে যাচ্ছে রাজ্যের সমস্ত অভয়ারণ্যের দরজাও। বনমন্ত্রী রাজীব ব্যানার্জি একথা জানিয়েছেন।

করোনা পর্বে দীর্ঘদিন বন্ধ চিড়িয়াখানা। উত্তরবঙ্গের বনাঞ্চলে বন্ধ সাফারি। যাওয়া যাচ্ছে না সুন্দরবনেও। সম্প্রতি রাজ্যের হোটেল, লজ খুলে দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে রাজ্য সরকার। সেই অনুযায়ী দিঘা বা শান্তিনিকেতনে খুলে গিয়েছে হোটেল। এবার উত্তরবঙ্গের পর্যটন ব্যবসায়ীদের স্বস্তি দিয়ে সেখানেও বন খুলে দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিল বন দফতর। ঠিক পুজোর মুখে ব্যবসা চালুর সুখবর পাওয়ায় রাজ্য সরকারকে ধন্যবাদ জানিয়েছেন তাঁরা। বনমন্ত্রী রাজীব ব্যানার্জি জানিয়ে দিয়েছেন, আপাতত হাতি সাফারি হবে না। বাকি সমস্ত পরিষেবাই চালু থাকবে। তবে শিলিগুড়ির বেঙ্গল সাফারি সহ সমস্ত বুকিংই করতে হবে অনলাইনে।

পুজোর মুখে উত্তরবঙ্গের ফরেস্ট খুলে গেলে মার খাওয়া ব্যবসা কিছুটা ঘুরতে পারে বলে মনে করছেন পর্যটন ব্যবসায়ীরা। একই সঙ্গে আলিপুর ও দার্জিলিং চিড়িয়াখানা খুলে গেলে সুবিধা হবে অনেক মানুষের।

Comments
Loading...