‘তু মিলে, দিল খিলে’ গানে এক ট্রান্সজেন্ডার ব্যক্তির অপূর্ব নাচ দেখে মুগ্ধ নেটজনতা

বাড়িতে বাড়িতে গিয়ে দু’মুঠো ভাতের জন্য হাততালি বাজিয়ে ভিক্ষা করে তাঁরা। আইনের খাতায় তাঁদের ভোটাধিকার থাকলেও সমাজের খাতায় তাঁদের কোনো অধিকার নেই এখনো। সমাজ দিয়েছে কেবল নাম, ‘কিন্নর’, ‘হিজড়া’, ‘ছক্কা’ যা লোকে ব্যবহার করে গালাগালি হিসেবেও। একবিংশ শতাব্দীতে দাঁড়িয়েও তাঁদের নিয়ে সমাজের চিন্তাধারা বদলাইনি একটুকুও। তাঁদের মধ্যেও রয়েছে কিছু করে দেখানোর ট্যালেন্ট। সেই ট্যালেন্ট তৃতীয় লিঙ্গের এক ব্যক্তি।

সম্প্রতি নেট দুনিয়ায় ভাইরাল হয়েছে একটি ভিডিও।
ভিডিওটিতে দেখা যাচ্ছে ট্রেনের মহিলা কম্পার্টমেন্টে জনপ্রিয় হিন্দি গান ‘তু মিলে, দিল খিলে’-এর অসাধারন নাচ করছেন এক তৃতীয় লিঙ্গ ব্যক্তি। তাঁর নাচ দেখে মুগ্ধ হয়ে গেলেন কামরার মহিলারা। মহিলা যাত্রীদের মধ্যে অনেকেই ভিডিও রেকর্ড করেন তাঁর নাচের। সেই ভিডিও সোশ্যাল মিডিয়ায় প্রকাশ্যে আসার সাথে সাথেই নজর কাড়ে নেটবাসীদের। দেখতে দেখতেই ভাইরাল হয়ে পড়ে সেই ভিডিও। কমেন্ট সেকশনে সবাই জানতে চান এই নৃত্য শিল্পীর পরিচয়। তবে তাঁর নাম জানা যায়নি এখনো। ভিডিওটি দেখে প্রশংসায় পঞ্চমুখ নেটজনতা। ভিডিও দেখেই বোঝা যাচ্ছে তিনি একজন প্রতিভাবান নৃত্যশিল্পী।


যুগ যুগ ধরে তৃতীয় লিঙ্গের অস্তিত্ব অস্বীকার করে চলেছে এই সমাজ। তাঁরাও আমাদের মত ভগবানের সন্তান, এই কথা মেনে নিতে পারেন না অনেকেই। তবে ধীরে ধীরে এই সমাজে আসছে বদল। সম্প্রতি, অক্ষয় কুমারের ‘লক্ষী’ ছবির প্রধান চরিত্র একজন তৃতীয় লিঙ্গের ব্যক্তি। এই ছবির মধ্য দিয়ে তাঁদের সামাজিক বৈষম্য তুলে ধরেছেন ছবির নির্মাতারা। কৌশিক গাঙ্গুলির পরিচালিত এবং ঋদ্ধি সেন ও ঋত্বিক চক্রবর্তী অভিনীত ‘নগরকীর্তন’ মধ্য দিয়েও হিজড়া সম্প্রদায়ের লড়াইয়ের গল্প তুলে ধরা হয়েছে।

Comments
Loading...