খেলা থেকে কিছুদিনের জন্য বিরতি নিলেও সোশ্যাল মিডিয়ায় নিয়মিত অ্যাক্টিভ ভারতীয় ক্রিকেট দলের অধিনায়ক। এবার সোশ্যাল মিডিয়ায় তাঁর পোস্ট করা একটি ভিডিও জন্ম দিল নয়া বিতর্কের।
ক্রিকেটে বিরতির সুযোগে সোশ্যাল মিডিয়ায় ফ্যানেদের বিভিন্ন প্রশ্নের উত্তর দিচ্ছেন বিরাট। ভারত অধিনায়কের এরকমই একটি পোস্ট করা ভিডিও নিয়ে যাবতীয় বিতর্কের সূত্রপাত। জানা গেছে, কোহলিকে পাঠানো এক বার্তায় একজন বলেন, তাঁর ভারতীয় ব্যাটসম্যানদের তুলনায় অস্ট্রেলিয়া ও ইংল্যন্ডের ব্যাটসম্যানদের খেলা দেখতে বেশি ভালো লাগে। কোহলিকে ওভার রেটেড ব্যাটসম্যান বলে উল্লেখ করে ওই ব্যক্তি আরও লেখেন, কোহলির ব্যাটিংয়ে আহামরি কিছু নেই।
ব্যাস, এতেই চটে লাল ভারত অধিনায়ক। এক ভিডিও বার্তা মারফত ওই ব্যক্তিকে নিজের উত্তর দিয়েছেন বিরাট। ট্যুইটারে পোস্ট করা সেই ভিডিওতে বিরাট বলেছেন, ‘আমার মনে হয় আপনার ভারতে থাকা উচিত না। যান অন্য দেশে গিয়ে থাকুন। আপনি আমাদের দেশে থেকে কেন অন্য দেশকে ভালোবাসছেন? আপনি আমায় পছন্দ করেন না, এতে আমি কিছু মনে করছি না কিন্তু আমার মনে হয় আপনার আমাদের দেশে থাকা উচিত না।’

এই ভিডিও ভাইরাল হতেই সোশ্যাল মিডিয়ায় তীব্র ক্ষোভের মুখে পড়েছেন বিরাট। প্রশ্ন উঠছে দেশের কোনও নাগরিক যদি অন্য দেশের খেলোয়াড়দের পছন্দ করেন, তাহলে তাঁকে দেশ ছেড়ে চলে যেতে হবে? এরকম কথা কোহলি বলেন কী করে? তাহলে কি কেউ ভারতীয় দলের বা বিরাটের সমালোচনা করতে পারবেন না?

কেউ কেউ প্রশ্ন করছেন, তাহলে ভারতীয় না হয়েও যাঁরা বিরাটকে পছন্দ করেন, বিরাট কি তাঁদের নিজেদের দেশ ছেড়ে ভারতে এসে থাকতে বলবেন? একজন লিখেছেন, বিদেশি ভাষায় কথা বলে, বিদেশি পোশাক পরে, বিদেশি পণ্যকে প্রমোট করে, বিদেশে গিয়ে বিয়ে করে বিরাট এই সব বলছেন কী করে! এসব কথা বলার আগে তাঁর মাথা ঠিক ছিল তো?

একজন লিখেছেন বিরাট কেন খেলোয়ারসুলভ মনোভাব ছেড়ে রাজনীতিকদের মতো কথা বলছেন? তবে বিরাটকে মোক্ষম জবাব দিয়েছেন এক ব্যক্তি। জনৈক ওই ব্যক্তি বিরাটের মন্তব্যের পালটা একটি ভিডিও পোস্ট করেছেন, যেখানে শোনা যাচ্ছে বিরাট বলছেন, তাঁর পছন্দের ক্রিকেটার দক্ষিণ আফ্রিকার হার্শেল গিবস! প্রশ্ন উঠছে, এবার কি তাহলে বিরাট কোহলি বাক্স প্যাঁটরা গুছিয়ে দক্ষিণ আফ্রিকায় গিয়ে থাকবেন!

 

[ভিডিও দেখতে The Bengal Story র ইউটিউব চ্যানেল সাবস্ক্রাইব করুন]

You may also like