বিশ্বজয়ী ফ্রান্সকে শুভেচ্ছা জানাতে গিয়ে টেনে আনলেন ধর্ম, সিপিএম নেতা মানব মুখার্জির ফেসবুক পোস্ট নিয়ে বিতর্ক।

কারও কাছে আবেগ, কারও কাছে জীবন, কারও কাছে আজীবন লালিত এক সম্পর্ক। যার নাম ফুটবল। তাই বিশ্বের বহু ক্রীড়াপ্রেমীর কাছে ফুটবল শুধু খেলা নয়, একটা ধর্ম। যে ধর্ম তথাকথিত জাত-বর্ণ, চামড়ার রং, উঁচ-নীচকে হার মানায়। এই খেলা বহু যুগ আগেই দেশ-সীমানার বেড়াজাল, কাঁটাতার অতিক্রম করে, সাদা-কালো চামড়ার রঙ’কে পাশাপাশি দাঁড় করিয়েছে, আলিঙ্গণ বদ্ধ করেছে। এই ফুটবল এবং ২০১৮ বিশ্বকাপে সদ্য বিশ্বজয়ী ফ্রান্স’কে নিয়ে একটি ফেসবুক পোস্ট করে বিতর্কে জড়ালেন সিপিআইএম নেতা এবং রাজ্যের প্রাক্তন মন্ত্রী মানব মুখার্জি। সোমবার সকালে ফেসবুক পোস্টটিতে মানববাবু লেখেন, ‘অভিনন্দন ফ্রান্স বিশ্বকাপ জেতার জন্য। তাকিয়ে দেখ তোমার দলের দিকে ৮০% আফ্রিকান, ৫০% মুসলমান। যারা তোমায় এই বিরল সম্মান এনে দিল তাঁদের সম্মান দাও। পৃথিবীকে বলো এঁদের সম্মান দিতে। পৃথিবীর এতে ভালো হবে।’
রাজ্যের প্রাক্তন মন্ত্রীর এই পোস্টের কথা জানাজানি হতেই শুরু হয়েছে বিতর্ক। ফুটবল প্রেমী বাঙালির তীব্র ক্ষোভ এবং নজিরবিহীন ধিক্কারের মুখে পড়তে হয়েছে সদ্য সিপিএমের রাজ্য সম্পাদকমণ্ডলীতে জায়গা পাওয়া মানব মুখার্জিকে। প্রশ্ন উঠছে, বিশ্বজয়ী একটি দলকে শুভেচ্ছা জানাতে গিয়ে কেন ধর্ম-বর্ণের কথা টানলেন তিনি?
অনেকের প্রশ্ন, ফ্রান্স তো বিশ্বকাপ জিতেছে যোগ্য দল হিসাবে, নিজেদের যোগ্যতায়, টিম স্পিরিট নিয়ে। সেখানে আগ বাড়িয়ে ধর্ম-বর্ণের পরিসংখ্যান টেনে আনা কীরূপ রুচির পরিচয়। অনেকের মন্তব্য, ফ্রান্সের জাতীয় ফুটবল দলে যে মুসলমান এবং আফ্রিকান বংশোদভুতরা খেলেছেন তা কী সেখানকার জনগণ, সরকার, ফুডবল ফেডারেশন জানে না? তাহলে প্রশংসার নামে এমন বিতর্কিত মন্তব্য কেন করলেন তিনি!
অনেকের কথায় যে ফ্রান্স গোটা বিশ্বকে বিপ্লব, সাম্য-মৈত্রী, স্বাধীনতার কথা শিখিয়েছে, তাদের এই তিন লাইনের পোস্টের মাধ্যমে কী শেখাতে চাইছেন মানববাবু? অনেকের কটাক্ষ, তথাকথিত বামপন্থী হয়ে কবে থেকে ধর্মের ভিত্তিতে পৃথিবীকে দেখতে শুরু করলেন তিনি?
তীব্র কটাক্ষ করে কেউ কেউ বলেছেন, আলিমুদ্দিনের মিটিংয়ে ঠিক হয়েছে, সন্ত্রাসের ধর্ম হয় না, কিন্তু ফুটবলের ধর্ম হয়। তীব্র কটাক্ষ এবং ধিক্কারের পাশাপাশি তাঁর এই পোস্টের জন্য কিছু ব্যাঙ্গাত্মক উক্তিও প্রাপ্য হয়েছে রাজ্যের একদা মন্ত্রীর। একজন লিখেছেন, তাঁর এই জ্ঞানের বার্তাটি ফরাসি ভাষায় লিখলে, সে দেশের নাগরিকদের বুঝতে সুবিধা হোত। কারও মন্তব্য, ৫০ হাজার টাকার দামি চশমা পরা সর্বহারা নেতা উনি।
মানব মুখার্জির এই ফেসবুক পোস্ট নিয়ে দলের মধ্যেও আলোচনা শুরু হয়েছে।
বিতর্কের মুখে পড়ে অবশ্য বিকেলের পর পোস্টটি সরিয়ে দেওয়া হয়।
Comments
Loading...