স্পর্শ এড়িয়ে মোবাইল, আইপ্যাড, টাকা স্যানিটাইজ করার মেশিন তৈরি সরকারি ল্যাবে, ট্যুইট করে জানাল প্রতিরক্ষা মন্ত্রক

মোবাইল ফোন, আইপ্যাড, ট্যাব, ল্যাপটপ, টাকা বা যে কোনও গুরুত্বপূর্ণ নথিকে জীবাণুমুক্ত করতে কন্টাক্টলেস স্যানিটাইজেশন ক্যাবিনেট তৈরি করল হায়দরাবাদের ডিফেন্স রিসার্চ অ্যান্ড ডেভেলপমেন্ট বা DRDO ল্যাব।

করোনা সংক্রমণ এড়াতে বারবার হাতধোয়া এবং মাস্ক পরার মতো সাবধানতা অবলম্বন করলেও মোবাইল ফোন বা বহু হাত ঘুরে আসা টাকার মাধ্যমেও সংক্রমণ ছড়াতে পারে। তাই এই সংক্রমণ রুখতে হায়দরাবাদের ডিআরডিও ল্যাবে তৈরি হয়েছে একটি কন্টাক্টলেস স্যানিটাইজেশন ক্যাবিনেট। যার নাম দেওয়া হয়েছে ডিফেন্স রিসার্চ আল্ট্রাভায়োলেট স্যানিটাইজার (DRUVS)।

ডিআরডিও জানাচ্ছে, মূলত ল্যাপটপ, মোবাইল ফোন, ওয়ালেট, পার্স সহ অন্যান্য ইলেক্ট্রনিক্স গেজেট এবং কারেন্সি নোট বা টাকা সম্পূর্ণ জীবাণুমুক্ত করার জন্য এই স্যানিটাইজেশন ক্যাবিনেট আনা হয়েছে। এতে প্রক্সিমিটি সেনসরের সাহায্যে ডালা খুলবে এবং বন্ধ হবে পাশাপাশি স্যানিটাইজ করা হয়ে গেলে সংশ্লিষ্ট সিস্টেম স্লিপ মোডে চলে যাবে। এর ফলে কোনও স্পর্শ এড়িয়েই স্বয়ংক্রিয়ভাবে স্যানিটাইজিং এর কাজ করা যাবে। ওই ক্যাবিনেটে রাখা কোনও জিনিস ৩৬০ ডিগ্রি এক্সপোজারে স্যানিটাইজ হবে।

এর অটোমেটেড UVC কারেন্সি স্যানেটাইজিং ডিভাইস বা ‘NOTESCLEAN’ এর সাহায্যে টাকা, চেকবই, চালান, পাসবুক, পেপার, খাম, গুরুত্বপূর্ণ নথিকে জীবাণু মুক্ত করা যায়। প্রতিরক্ষা মন্ত্রকের ট্যুইটে এই কন্টাক্টলেস স্যানিটাইজেশন ক্যাবিনেট তৈরির কথা জানানো হয়েছে। ভাইরাস রুখতে কোনও স্পর্শ ছাড়াই এই DRUVS-এর মাধ্যমে জীবাণুনাশ করা উল্লেখ্যযোগ্য সাফল্য বলে ঘোষণা করেছে রাজনাথ সিংহের মন্ত্রক।

Comments
Loading...