৫ হাজার সদ্য স্নাতককে নিয়োগ করছে কোটাক ও অ্যাক্সিস ব্যাঙ্ক, প্রযুক্তি সংক্রান্ত জ্ঞানে বিশেষ অগ্রাধিকার

কোটাক ও অ্যাক্সিস ব্যাঙ্ক কিছুদিনের মধ্যে ৫,০০০ সদ্য স্নাতককে নিয়োগ করতে চলেছে। চাকরি-প্রার্থীদের যোগ্যতার ক্ষেত্রে প্রযুক্তি সংক্রান্ত বিষয়ে দখল থাকা বিশেষ প্রয়োজন বলে জানাচ্ছে দুই ব্যাঙ্ক। ‘ডিজাইন স্কিল’, যে প্রযুক্তিগত বিষয়ে কিছুদিন আগেও ব্যাঙ্কিং ক্ষেত্র তেমন আমল দিত না, এখন এই বিষয়ে দখল থাকা প্রার্থীদের চাহিদা তুঙ্গে।
কোটাক মাহিন্দ্রা ব্যাঙ্ক জানাচ্ছে, চলতি বছরেই তারা ২,৬০০ সদ্য স্নাতককে বিভিন্ন পদে নিয়োগ করছে। সংস্থার মানব সম্পদ উন্নয়ন অফিসার সুখজিৎ সিংহের কথায়, তাঁরা প্রতি বছর গড়ে ২,৫০০ জন প্রার্থীকে ব্যাঙ্কের বিভিন্ন পদে নিয়োগ করেন। এবং এঁরা প্রত্যেকেই সদ্য স্নাতক। কোটাক মাহিন্দ্রার কর্মীদের একটি বড় অংশই ‘ফ্রেশ ট্যালেন্ট’-এ ভর্তি বলে দাবি মানব সম্পদ উন্নয়ন অফিসারের। তবে এবার সেই সংখ্যাটা আরও বাড়ছে।
অ্যাক্সিস ব্যাঙ্কের তরফে খবর, শীঘ্রই সদ্য স্নাতক হওয়া ২,৩০০ জনকে কাজ দিতে চলেছে তারা। যার মধ্যে ২,০০০ কর্মীকে ‘এন্ট্রি-লেভেল’ -এর কাজে নিয়োগ করা হবে। ২০০ জনের বেশি বিবিএ বা এমবিএ পাশ করা পড়ুয়া চাকরির সুযোগ পাচ্ছেন এবং এবং আইআইটি এবং এনআইটি থেকে প্রায় ১০০ জন ডিগ্রিধারীকে ব্যাঙ্কের পদস্থ অফিসারের দায়িত্ব দেওয়া হবে।
দুই ব্যাঙ্কই জানাচ্ছে, এ বছর তারা সাইবার সিকিউরিটি সহ বিভিন্ন প্রযুক্তি ক্ষেত্রে বিশেষ নজর দিচ্ছে। তাই প্রার্থীদের প্রযুক্তি সংক্রান্ত জ্ঞানকে অগ্রাধিকার দেওয়া হচ্ছে। এই কারণে আইটি পড়ুয়াদের ব্যাপক চাহিদা বাড়ছে ব্যাঙ্কগুলিতে। কোটাক মাহিন্দ্রা ব্যাঙ্কের এক উচ্চ পদস্থ কর্তার কথায়, সাইবার বিশেষজ্ঞ, ডিজিটাল ব্যাঙ্কিং, আর্টিফিশিয়াল ইন্টেলিজেন্স, ইনফর্মেশন সিকিউরিটি – এসব ক্ষেত্রে জ্ঞান থাকা চাকরি-প্রার্থীদের চাহিদা উত্তরোত্তর বৃদ্ধি পাচ্ছে। এমনকী এই প্রথমবার কোটাক মাহিন্দ্রা বিভিন্ন ইঞ্জিনিয়ারিং কলেজে ক্যাম্পাসিংয়ের মাধ্যমে কর্মী নিয়োগ শুরু করেছে। পিছিয়ে নেই অ্যাক্সিস ব্যাঙ্কও। ব্যাঙ্কিং সেক্টর ক্রমশ ডিজিটালাইজেশনের উপর নির্ভরশীল হচ্ছে। তাই প্রথাগত কর্মীর পাশাপাশি প্রযুক্তি বিষয়ে দখল থাকা পড়ুয়াদের চাহিদা বাড়ছে। যা ব্যাঙ্কিং সেক্টরে বছর কয়েক আগেও ভাবা যেত না।

Comments
Loading...