ভিন রাজ্যে আটকে থাকা শ্রমিক ও পড়ুয়াদের ফেরাতে উদ্যোগী মুখ্যমন্ত্রী, ‘চিন্তা নেই দিদি আছে’ হ্যাশট্যাগ দিয়ে শেয়ার অভিষেকের

একমাসের বেশি পেরিয়ে গিয়েছে লকডাউন চলছে গোটা দেশে। এখনও বিভিন্ন রাজ্যের বহু অভিবাসী শ্রমিক অন্য রাজ্যে আটকে রয়েছেন। শুধু তাই নয়, অন্য রাজ্যে পড়তে যাওয়া অনেক পড়ুয়াও ফিরতে পারছেন না বাড়িতে। লকডাউনের মেয়াদ পুরোপুরি কবে শেষ হবে তাও অনিশ্চিত। এই পরিস্থিতিতে প্রায় একমাস ধরে ভিন রাজ্যে আটকে থাকা বাংলার মানুষকে আশ্বস্ত করলেন মুখ্যমন্ত্রী।
সোমবার নিজস্ব ট্যুইটার হ্যান্ডেল থেকে মমতা লেখেন, লকডাউনের ফলে ভিন রাজ্যে আটকে থাকা বাংলার মানুষকে বাড়ি ফেরাতে যথাসাধ্য সাহায্যের চেষ্টা করছে রাজ্য সরকার। এ ব্যাপারে সরকারি আধিকারিকদের নির্দিষ্ট দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে। মুখ্যমন্ত্রী ওই ট্যুইটে লেখেন, যতদিন তিনি আছেন, রাজ্যের একজনও অসহায় বোধ করবেন না। এই কঠিন সময়ে তাঁদের সবার পাশে রয়েছেন তিনি। ভিন রাজ্যে আটকে থাকা মানুষদের সমস্যা তিনি নিজে দেখছেন বলে জানান মমতা। তিনি আরও লিখেছেন, রাজস্থানের কোটায় আটকে থাকা পড়ুয়াদের ঘরে ফেরানোর ব্যাপারে শীঘ্র পদক্ষেপ করা হচ্ছে।

মুখ্যমন্ত্রীর এই ট্যুইটের পরই ‘চিন্তা নেই দিদি আছে’ (#ChintaNeiDidiAache) হ্যাশট্যাগ দিয়ে তা শেয়ার করেন তৃণমূল সাংসদ অভিষেক ব্যানার্জি।

কিছুদিন আগে রাজ্যের মুখ্যসচিব রাজীবা সিনহা নবান্নে সাংবাদিক বৈঠকে জানান, এই মুহূর্তে রাজ্যের প্রায় চার-পাঁচ হাজার পড়ুয়া আটকে রয়েছেন কোটায়। সেখানে বিভিন্ন বেসরকারি আবাসিক কোচিং সেন্টারে ডাক্তারি, আইআইটি, আইআইএসইআর এন্ট্রান্স পরীক্ষার প্রস্তুতির প্রশিক্ষণের জন্য রাজ্যের বহু পড়ুয়া আছেন। এবার তাঁদের বাড়ি ফেরানোর তোড়জোড় শুরু হচ্ছে।

Comments
Loading...